ভাইরাল

‘এই আমি তোর থেকে বড়’! বলল কৌশাম্বী সৌমিতৃষাকে! সত্যি কি কথা বন্ধ সৌমিতৃষা আর কৌশাম্বীর, ভাইরাল ভিডিওতে ফুটে উঠল দুই অভিনেত্রীর মধ্যকার সম্পর্ক

এমনিতেই সব সময় খবরের শিরোনামে থাকে জি বাংলার মিঠাই ধারাবাহিক। অনেকদিন পর এই ধারাবাহিক আবার নিজেদের বঙ্গসেরার আসন ফিরে পেয়েছে। এই সপ্তাহে বেঙ্গল টপার হয়েছে এই ধারাবাহিক। তবে সম্প্রতি এই ধারাবাহিকটি অন্য কারণে খবরের শিরোনামে এসেছে। তা হলো অফস্ক্রিন মিঠাই আর সিদ্ধার্থের সম্পর্ক নিয়ে! শোনা যাচ্ছে অফ স্ক্রিন মিঠাই ও সিদ্ধার্থের মুখ দেখাদেখি বন্ধ! এমনকি সিদ্ধার্থ অর্থাৎ আদৃতের জন্মদিনে তাকে উইশ পর্যন্ত করেননি মিঠাই অর্থাৎ সৌমিতৃষা কুন্ডু। এমনকি কানাঘুষো এও শোনা যাচ্ছে যে, কৌশম্বী চক্রবর্তী অর্থাৎ ধারাবাহিকে সিদ্ধার্থের দিদিয়াকে নিয়েই নাকি আদৃত এবং সৌমিতৃষার মধ্যে ঝামেলা লেগেছে। একে অন্যকে দু’চোখে সহ্য করতে পারছেন না দুই অভিনেত্রী।

গতমাসে কৌশাম্বীর সাথে ছবি শেয়ার করে আদৃত লেখেন, “দুটো মানুষ যারা অন্যের ব্যাপারে কথা বলে না আবার সবকিছুতে নাক গলায় না। মানুষের কাজ হল বলা, আর আমাদের কাজ বিন্দাস থাকা। আমার বেস্ট ফ্রেন্ডের সাথে”এরপর এই পোস্টে হাসির রিয়েকশন দেয় তার বেস্ট ফ্রেন্ড সায়ক চক্রবর্তী। কানাঘুষো শোনা যেতে থাকে যে, সৌমিতৃষা নাকি আদৃতকে একতরফা ভালোবাসেন, আর আদৃত আর কৌশাম্বী দুজন দুজনকে ভালোবাসেন- আর এই নিয়েই নাকি তাদের মধ্যে বেজায় ঝগড়া, এমনকি মুখ দেখাদেখিও বন্ধ হয়ে গিয়েছে।

যদিও এই নিয়ে সৌমিতৃষা একটি সাক্ষাৎকারে জানান, যা রটেছে তা মোটেও ঘটেনি। যদিও তা মোটেই বিশ্বাস করেননি নেটাগরিকরা। সম্প্রতি মিঠাইয়ের মেকআপ রুমের একটি ভিডিও ভাইরাল হলো, যেখানে ফুটে উঠল এই দুই অভিনেত্রীর মধ্যে সম্পর্ক। ভিডিওতে দেখা গেল খাটের মধ্যে বসে আছেন কৌশাম্বী আর তন্বী লাহা রায়(অর্থাৎ ধারাবাহিকের তোর্সা)। একটু দূরেই শটের জন্য রেডি হচ্ছিলো সৌমিতৃষা। তন্বী আর কৌশাম্বীর মধ্যে একটা হালকা খুনসুটি চলছিলো খাটের কোন ধারে কে বসবে এবং কে কাকে সুড়সুড়ি দেবে এই নিয়ে। একটু পরে দেখা গেল এর মধ্যে যোগ দিলো সৌমিতৃষা! এমনকি কৌশাম্বীকে ‘কে সুরসুরি দেয়নি’ এই নিয়ে সে রীতিমতো ঝগড়াও শুরু করে দেয়। কৌশাম্বী একসময় ওঠে,‘এই আমি তোর থেকে বয়সে বড়’- ভিডিওটি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে। এই পুরো ভিডিওটি যে মজার ছলে করা তা বোঝা যাচ্ছে।

তবে এই ভিডিওতে মিঠাই এবং দিদিয়ার মধ্যে যে কেমিস্ট্রি ধরা পড়েছে, তা দেখে মনে হচ্ছে দুজনের মধ্যে সবকিছু ঠিকঠাকই আছে, যদিও গুজব অন্য কথায় বলছে।

Back to top button