ভাইরাল

“আমি বেশ ভালোই বাংলা বুঝতে পারি” – জয়পুরের মাটিতে দাঁড়িয়ে স্পষ্ট বাংলা বললেন “মিস্টার কুল”! প্রিয় ক্রিকেটারের মুখ থেকে বাংলা শুনে আপ্লুত বাঙালি, সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল সেই ভিডিও

বাংলাকে ভারতের সবথেকে মিষ্টি ভাষা হিসেবেই ধরা হয়ে থাকে। এটি এমন একটি ভাষা যা শিখতে খুব বেশি কষ্ট করতে হয় না। একটু চেষ্টা করলেই স্পষ্ট ভাষায় বাংলা বলা যায়। এমনিতেই বাংলা এতই মিষ্টি ভাষা যে শুনতে বড়ই মধুর শোনায়। আর অবাঙালি সর্বভারতীয় তারকাদের কাছ থেকে বাংলা শোনা ভাগ্যের বিষয়। তবে বেশিরভাগ ক্ষেত্রে আমরা দেখেছি এই সর্বভারতীয় তারকারা বাংলায় এলেই বাংলা ভাষায় কথা বলার চেষ্টা করেন।

আর সেখানেই মন জয় করে নেন তাঁর বাঙালি অনুরাগীদের। এর আগেও বহু তারকা বাংলায় এসে বাংলায় কথা বলার চেষ্টা করেছেন। অভিনয় জগতের শাহরুখ খান, অমিতাভ বচ্চন সকলেই বাংলা বলে বাঙালির মন জয় করেছেন। এবার সেই তালিকায় নাম লিখিয়েছেন সর্বভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রাক্তন অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি। যদিও কলকাতার বুকে দাঁড়িয়ে নয় কলকাতার থেকে অনেক দূরে জয়পুরের মাটিতে দাঁড়িয়ে বাংলা বলে বাঙালির মন জয় করেছেন এই ক্রিকেটার।

সম্প্রতি এক বিজ্ঞাপনের অনুষ্ঠানের জন্য জয়পুরে উপস্থিত হয়েছিলেন দুই বাঙালি তারকা এবং এম এস ধোনি। জয়পুরে এসে মঞ্চে দেখতে পাওয়া গেল অভিনেত্রী ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত, অভিনেতা অম্বরিশ ভট্টাচার্য এবং ক্রিকেটার মহেন্দ্র সিং ধোনিকে। সেই মঞ্চে দাঁড়িয়ে দুই বাঙালি তারকা সামনে স্পষ্ট ভাষায় বাংলা বললেন ধোনি। অভিনেতা আম্বরিশ ভট্টাচার্য নিজের সোশ্যাল মিডিয়া একাউন্ট থেকে ঋতুপর্ণা আর ধোনির সাথে সেলফি শেয়ার করেছেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। অভিনেতা সেই ছবিতে পরনে ছিলেন রাজস্থানী পাগড়ী আর একটি দারুণ পাঞ্জাবি। মিস্টার কুল এবং অভিনেত্রী ঋতুপর্ণা সেনগুপ্তর সাথে সেই সেলফি শেয়ার করে অভিনেতা কে অপশনে লিখেছেন, “ধনীর সাথে ছবি তুলতে গেলে একটু রাজা সাজতে হয় বৈকি”।

ক্যাপ্টেন কুলের সাথে বাংলার যোগ বহু বছরের। নিজের ক্যারিয়ারের শুরুর দিকে জাতীয় দলের সুযোগ হয়ে ওঠার আগে ক্রিকেটার কলকাতার পি সেন ট্রফিতে নিয়মিত খেলতেন। সেই সময় নিশ্চয়ই ক্রিকেটার কিছু বাংলা ভাষা শিখেছিলেন। এছাড়াও পরে ইন্ডিয়ান ক্রিকেট টিমে এসে কলকাতাতেও বহু ম্যাচ খেলতে হয়েছিল তাঁকে। সেই সুবাদেও বেশ কিছু বাংলা ভাষা আয়ত্ত করেছিলেন মিস্টার কুল। এছাড়াও ক্যাপ্টেন কুলের স্ত্রী সাক্ষী মালিকও কলকাতার মেয়ে। সুতরাং সেদিক থেকে দেখতে গেলে ইন্ডিয়ান ক্রিকেট টিমের প্রাক্তন অধিনায়ক তথা ক্যাপ্টেন কুল আমাদের কলকাতার জামাই।

জয়পুরের এই মঞ্চে দাড়িয়ে মাইক হাতে করে ধোনি বলেন “আমি বেশ ভালোই বাংলা বুঝতে পারি”। কিন্তু এরপর হিন্দিতে ক্রিকেটার বলেন “এর চেয়ে বেশি বলতে গেলে ভুলভাল বাংলা বলব”। প্রসঙ্গত ইন্ডিয়ান ওমেন ক্রিকেট টিমের প্লেয়ার তথা কিংবদন্তি মহিলা ক্রিকেটার ঝুলন গোস্বামী একবার বলেছিলেন ধোনি তাঁর সঙ্গে দেখা হলেই বাংলা বলেন। ক্যাপ্টেন কুল নাকি বলেন, “কী খবর, মিডিয়াম পেসার?”

Back to top button