ভাইরাল

দাদাগিরিতে আসা নিয়ে বং গাই সহ দাদাগীরির মঞ্চ তুলে রোস্ট সিনেবাপ মৃন্ময়ের! ইউটিউবারদের লড়াই চলছে উত্তরবঙ্গ আর দক্ষিণবঙ্গ নিয়ে, আপনি কার পক্ষে?

দাদাগিরি আনলিমিটেড ৯ মানেই নিত্যনতুন চমক! প্রতিটি সিজনে ধামাকাদার এপিসোড হয়, সেলিব্রেটিরা এসে ভিড় করেন দাদার মঞ্চে। তবে এইবার সিজনটা যেন অন্যান্যবারের থেকে আলাদা। এইবার প্রতিটি এপিসোডেই সেলিব্রেটিরা আসছেন। সম্প্রতি দাদাগিরির একটি এপিসোডে জনপ্রিয় ক্রিয়েটাররা এসে হাজির হয়েছিলেন। এদের মধ্যে ছিলেন বং গাই কিরণ দত্ত, গৌরব তপাদার, দুর্বা দে, তালপাতার সেপাই, ঝিলম গুপ্তর মতো জনপ্রিয় ইউটিউবাররা। এই বিষয়টি নিয়ে সিনেবাপ মৃন্ময় তীব্র আপত্তি তোলেন। তিনি সরাসরি জি বাংলার ক্রিয়েটিভ টিমের উপর অভিযোগ আনেন উত্তরবঙ্গ আর দক্ষিণবঙ্গ নিয়ে ভেদাভেদ করার। এরপর থেমে থাকেননি বং গাই ও। তিনি সিনেবাপ মৃন্ময়ের অভিযোগ নিজের যুক্তিতে খন্ডন করেন।

সিনেবাপ যে ভিডিওটি করেন সেখানে তিনি বলেন, যে সকল ক্রিয়েটাররা দাদাগিরিতে আসার সুযোগ পেয়েছেন তারা কিলো কিলো তেল নিয়ে বসে থাকেন আর এগুলো মাখিয়েই তারা সুযোগ পেয়েছেন দাদার মঞ্চে যাওয়ার। এক‌ইসাথে তিনি এও দাবি করেন যে, উত্তরবঙ্গ -দক্ষিণবঙ্গের ছেলেমেয়েদের নিয়ে সব সময় ভেদাভেদ করা হয়। কলকাতার ছেলে মেয়েরা যেভাবে সুযোগ পায় উত্তরবঙ্গের ছেলেমেয়েরা সেভাবে সুযোগ পায় না, এমনকি উত্তরবঙ্গের ছেলেমেয়েদের গুণ‌ও স্বীকার করে না বাকি বাংলা। স্বাভাবিকভাবেই সিনেবাপের এই ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ার নেটাগরিকদেরকেও দুই ভাগে ভাগ করে দিয়েছে। কেউ মৃ্ন্ময়ের কথাকে সমর্থন করেছেন, কেউ করেননি।

মৃন্ময় এই ভিডিওতে বংগাইকে বারংবার কটাক্ষ করেছেন। বংগাইও ছেড়ে দেওয়ার পাত্র নয়। তিনি খুঁজে খুঁজে সিনেবাপ মৃন্ময়ের শেয়ার করা ভিডিও ফুটেজ তুলে দাবি করেন যে, মেয়েদের যোগ্য সম্মানটুকু দেয় না নর্থ বেঙ্গলের এই ইউটিউবার।- যুক্তি সাজিয়ে নিজের মন্তব্য রাখার পাশাপাশি মৃন্ময়কে রোস্ট‌ও করেন বং গাই। তবে এই রোস্ট করতে করতে মৃন্ময়ের মেয়ে, বৌকেও টেনে আনেন কিরণ দত্ত আর কিরণ দত্তকে রোস্ট করার সময়‌ও অশ্লীল কথাবার্তা বলেছেন সিনেবাপ মৃন্ময়। সিনেবাপ মৃন্ময় এমন অনেক কথা বং গাই কিরণ দত্তের উদ্দেশ্যে বলেছেন, যা লেখার অযোগ্য। এরপর এই দুই ভিডিও নিয়ে নেটাগরিকদের মধ্যে তুমুল চর্চা শুরু হয়ে গিয়েছে। নেটাগরিকরা প্রশ্ন তুলেছেন যে, একে অপরকে রোস্ট করতে গিয়ে এইভাবে কি শালীনতার মাত্রা ছাড়িয়ে যেতে পারেন ক্রিয়েটাররা?

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, এই দুই ভিডিওকে ঘিরে ইউটিউবারদের ভক্তরাও একে অপরকে নিয়ে বিষোদগার করতে শুরু করে দিয়েছে।

Back to top button