Story

গ্রামে বিদ্যালয় প্রতিষ্ঠান জন্য নিজের চার বিঘা জমি দান করে দিলেন মধ্য প্রদেশের বাসিন্দা, মানবিকতার নজির গড়লেন কৃষক, গ্রামের স্কুল নির্মাণের জন্য দান করলেন জমি

বর্তমানে সোশ্যাল মিডিয়ার হলো মিডিয়ার অন্যতম শক্তিশালী একটি প্ল্যাটফর্ম। এর মাধ্যমে বিভিন্ন প্রতিভা থেকে শুরু করে ভাইরাল ভিডিও এমনকি দুষ্কৃতীদের বিভিন্ন কর্মকান্ড ভাইরাল হয়ে পড়ে মাঝে মধ্যে।

এই মিডিয়ার আরেকটি অন্যতম দিক হলো বিজ্ঞাপন এই বিজ্ঞাপনের মাধ্যমে মানুষের কাছে অনেক নতুন নতুন তথ্য পৌঁছে যায় আমরা মাঝে মধ্যে একটি বিজ্ঞাপন দেখতে পাই ‘পড়েগি ইন্ডিয়া তবে তো বাড়েগি ইন্ডিয়া’। মূলত এই শ্লোগানের মাধ্যমে পিছিয়ে পড়া ছাত্র-ছাত্রী অথবা যে সমস্ত ছাত্র-ছাত্রী এখনো শিক্ষার আলো দেখেনি তাদেরকেই আগ্রহী করে তোলা হয়।

এবার এই শ্লোগানকে সত্যি করে তুললেন মধ্যপ্রদেশের অশোকনগরের মসিদপুর গ্রামের এক বাসিন্দা। যিনি পেশায় একজন কৃষক। গ্রামের বিদ্যালয় প্রতিষ্ঠানের জন্য তিনি নিজের জমির থেকে চার বিঘা জমি দান করলেন বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ কে। যার মূল্য বর্তমান সময়ে কয়েক লক্ষ টাকা। আমাদের দেশ ভারত বর্ষ মূলত কৃষিপ্রধান দেশ আর এখানেই ৭০ থেকে ৮০ শতাংশ বাসিন্দা ই-কৃষক। আর কৃষকের কাছে তার মূল সম্পদ গুলির মধ্যে অন্যতম একটি হলো জমি।

মধ্যপ্রদেশের ওই বাসিন্দার নাম ব্রিজেন্দ্র সিং রঘুবংশী। তার ওই চার বিঘা জমির মোট মূল্য ২৫ লক্ষ টাকা। নিজের এই অসাধারণ মানসিকতার পরিচয় দিয়ে তিনি ভাইরাল হয়েছেন সোশ্যাল মিডিয়া। তারমানে বোঝাই যাচ্ছে শিক্ষার কদর তার কাছে কতটা বেশি। আসলে ওই গ্রামের ছেলেমেয়েদের পড়াশোনার জন্য অনেক দূরে একটি বিদ্যালয় যেতে হয়।

সেই গ্রামে কোন বিদ্যালয় না থাকায় গ্রামের প্রধানরা মিলে ঠিক করেছিল গ্রাম একটি বিদ্যালয় স্থাপন করার কথা। বিদ্যালয় বানানোর জন্য মোট ১০ বিঘা জমি প্রয়োজন ছিল ছয় বিঘা জমির আয়োজন হয়ে গিয়েছিল বাকি ছিল আর চার বিঘা জমি সেটা কিছুতেই যোগান হচ্ছিল না। তাই বিজেন্দ্র বাবু নিজের চার বিঘা জমি দান করে বিদ্যালয়ের উদ্দেশ্যে।

Back to top button