বলিউড

কোনো প্রমাণ ছাড়াই হেনস্থা করা হচ্ছে মমতা দিদির সরকারকে, প্রতিহিংসা থেকেই নাকি তৃণমূল দলের বিরুদ্ধে কোন প্রমাণ ছাড়াই দলকে অপমানিত করা হচ্ছে, দাবি সাংসদ অভিনেতা শত্রুঘ্ন সিনহার

তৃণমূল কংগ্রেসের মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায় ঘনিষ্ঠ অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের বাড়ি থেকে ২১ কোটি টাকা পাওয়ার পর ইডির দপ্তর থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে পার্থ চট্টোপাধ্যায় এবং অর্পিতা মুখোপাধ্যায় দুজনকেই। তারপর থেকেই তৃণমূল কংগ্রেস দলের বিভিন্ন নেতা-মন্ত্রীরা রাগে ফেটে পড়ছে। এবারে নিজের ক্ষোভ প্রকাশ করলেন সাংসদ অভিনেতা শত্রুঘ্ন সিনহা। কেন্দ্রকে উদ্দেশ্য করে অভিনেতা বললেন ইচ্ছে করে তৃণমূল কংগ্রেসকে অপমানিত করা হচ্ছে। প্রতিহিংসা থেকেই নাকি কোন প্রমাণ ছাড়াই হেনস্থা করা হচ্ছে দলকে।

লোকসভা উপনির্বাচনে আসানসোল কেন্দ্র থেকে ভোটে জয়ী হয়েছিলেন শত্রুঘ্ন সিনহা। একুশে জুলাই সমাবেশেও দেখা দিয়েছিলেন অভিনেতা। তারপরের দিনই ২১ কোটি টাকা নিয়ে তোলপাড় রাজ্য। এরপর রবীন্দ্র ভবনের এক অনুষ্ঠানেই শত্রুঘ্ন সিনহা কে বলতে শোনা যায় কেন্দ্রীয় সরকারি ইডি কে দিয়ে তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে কোন প্রমাণ ছাড়াই হেনস্থা করছে দলকে।

দেশে একাধিক সমস্যা দেখা দিচ্ছে। গ্যাসের মূল্য বৃদ্ধি, বেকারত্বের হার বৃদ্ধি, টাকার মূল্য দিনদিন কমে যাচ্ছে এই সমস্ত নানা সমস্যার জন্যই দেশ এখন অগ্নিগর্ভ। আর এইসব দিক থেকেই জনগণের নজর সরানোর জন্যই তৃণমূলকে টার্গেট করেছে কেন্দ্র সরকার। কোন প্রমাণ ছাড়াই নেতাদের উপর অত্যাচার করা হচ্ছে তাদের অপমান করা হচ্ছে বলেই দাবি শত্রুঘ্ন সিনহার। গত দুদিন টানা জেরার মুখে পড়েছিলেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়। তার ঘনিষ্ঠ অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের বাড়ি থেকে উদ্ধার করা হয় ২১ কোটি টাকা। দক্ষিণ কলকাতার একটি নামি বিলাসবহুল আবাসনে থাকেন অর্পিতা।

সেখান থেকে উদ্ধার হয় ২১ কোটি টাকা সহ ৫০ লক্ষের সোনার গয়না এবং কুড়িটি দামি মোবাইল ফোন। এছাড়াও জানা যায় রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে ছড়িয়ে রয়েছে অর্পিতার বেশ কয়েকটি বাড়ি এবং বিলাসবহুল আবাসন। এরপরেই গ্রেফতার করা হয় দুজনকে। শনিবার সকালে গ্রেফতারসোমবার সকালে এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে করে ভুবনেশ্বরে নিয়ে যাওয়া হয় পার্থ চট্টোপাধ‍্যায়কে। ভুবনেশ্বর এইমসে চার চিকিৎসকের মেডিক‍্যাল টিমের পর্যবেক্ষণে থাকবেন তিনি। পার্থ চট্টোপাধ্যায় এর সঙ্গে ভুবনেশ্বরে গিয়েছেন ইডির তদন্তকারী অফিসাররাও।

Back to top button