বলিউড

দেউলিয়া হতে হতে অল্পের জন্য রক্ষা পেয়েছিলেন বিগ বি তার ভাগ্যের চাকা ঘুরিয়ে দিয়েছিল কোন আটটি ছবি জেনে নিন ।

বলিউডের রাজা যদি কাউকে বলা যায় তাহলে তিনি হলেন বিগ বি অর্থাৎ অমিতাভ বচ্চন। উত্তরপ্রদেশে জন্মগ্রহণকারী এই মানুষটি তার তরুণ অবস্থায় পা রেখেছিলেন বলিউডের সিনেমা জগতে।
প্রথম দিকে প্রচুর স্ট্রাগল করতে হয়েছিল তাকে তার জায়গা বজায় রাখার জন্য। তারপর ৯০ এর দশকের শেষের দিকে তার জীবনে নেমে আসে ঝড়। প্রায় দেউলিয়া হতে বসেছিলেন তিনি।

ঠিক এমন অবস্থায় যেন ঈশ্বরের এক দেবদূতের থেকে তিনি পেলেন একটি সিনেমার কাজ। “মোহাব্বতে” এবং একটি টিভি শো “কোন বানেগা ক্রোড়পতি” তে কাজের সুযোগ যেন বদলে দিয়েছিল তার ভাগ্য । রীতিমতো গেম চেঞ্জার হয়ে এসেছিল তার জীবনে। আর এর পর থেকেই কখনোই তিনি বাধার সম্মুখীন হননি। ২০০০ সাল থেকে একের পর এক ছবির অফার আসতে থাকে তার কাছে। জানতে চান সেই গেম চেঞ্জার ছবি গুলির নাম?

আসুন জেনে নিই।
১. মোহাব্বতে (২০২০): ২০২০ সালে প্রথম তার বর্তমান বৌমা ঐশ্বর্য এবং ছেলে অভিষেকের সাথে একই পর্দায় কাজ করেন অমিতাভ। আর সেই ছবি হয়ে যায় সুপার-ডুপার হিট। যেন এক পলকে ভাগ্যের চাকা ঘুরিয়ে দিয়েছিল এই ছবিটি।

২. বাগবান (২০০৩) : ২০০৩ সালে হেমা মালিনীর সাথে জুটি বেঁধে এই ছবিটি করেন অমিতাভ। বর্তমান সমাজে বৃদ্ধ বাবা মায়ের প্রতি মূল্যবোধের অবক্ষয় তুলে ধরা হয়েছিল এই ছবিতে।
হেমা মালিনী ও অমিতাভ বচ্চনের সুদৃঢ় অভিনয় এই ছবিটিকে প্রশংসনীয় করে তুলেছিল।

৩. ব্ল্যাক ( ২০০৫) : এটি একটি অন্যতম রত্ন বলা যেতে পারে বিজেপি এর জীবনে। রানী মুখার্জি, আয়েশা কাপুর এবং অমিতাভ অভিনীত মাস্টারপিস এই ছবিটিতে একটি অন্ধ মেয়ে এবং তার শিক্ষকের কাহিনী দেখানো হয়েছিল যা মন জয় করে নিয়েছিল সকলের।

৪. সরকার (২০০৫) : এটি একটি রাজনৈতিক থ্রিলার মুভি। রাম গোপাল ভার্মা পরিচালিত এই ছবিতে সরকারের চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন যার রীতিমতো প্রশংসনীয় হয়ে উঠেছিল দর্শক মহলে।

৫. নিঃশব্দ (২০০৫): এই ছবিটি ছিল অমিতাভ বচ্চনের জীবনের একটি অন্যতম সমালোচিত এবং চ্যালেঞ্জিং সিনেমা। এই সিনেমায় দেখানো হয়েছিল অমিতাভ বচ্চন তার একটি মেয়ের বন্ধুর প্রেমে পড়ে যান। অভিনেত্রী জিয়া খানকে এখানে অমিতাভের মেয়ের চরিত্রে অভিনয় করতে দেখা যায়।

৬. পা: এই ছবিটি ছিল অমিতাভের জীবনে অন্যতম একটি সেরা সিনেমা। এই সিনেমায় অভিনয় করার জন্য তিনি শ্রেষ্ঠ অভিনেতার পুরস্কার পেয়েছিলেন জাতীয় লেভেলে এবং ফিল্মফেয়ার অ্যাওয়ার্ড পেয়েছিলেন।

৭. চিনি কম(২০০৭): ইতি বক্স অফিসে খুব ভালো চলে ছিল।

৮. পিকু ( ২০০৫) : অভিনেতা ইরফান খান এবং দীপিকার সাথে অভিনীত কলকাতা ভিত্তিক এই সিনেমাটি অত্যন্ত প্রশংসা লাভ করেছিল দর্শক মহলে। বক্স অফিসে রীতিমতো সাড়া ফেলে দিয়েছিল এই ছবিটি। ছবিটিতে তিনজনের অভিনয় মন কেড়ে নিয়েছিল সবার।

Back to top button