বলিউড

“শর্মিলা ঠাকুর হয়ে ওঠার কতটা যোগ্যতা রয়েছে তা নিয়ে সন্দেহ আছে” – নিজের ঠাকুমার বায়োপিকে অভিনয় করা নিয়ে অকপটে মুখ খুললেন সারা আলি খান

দয়াময়ী রূপে সত্যজিৎ রায়ের নায়িকা টলিউডের দাপিয়ে অভিনয় করে বেরিয়েছিলেন। পরবর্তীকালে বলিউডেও বেশ বড় জায়গা তৈরি করে নিয়েছিলেন নিজের। অভিনেত্রীর রূপ, ফ্যাশন সিন্স এবং অভিনয়ের তীক্ষ্ণতা সবটাই আলোচনা যোগ্য। এমন একজন অভিনেত্রী সম্পর্কে যাই বলা হোক না কেন সবটাই কম হবে। তবে বহু বছর হয়ে গেছে অভিনেত্রী ক্যামেরা, টাইমলাইটে এবং অ্যাকশনের বাইরে। কিন্তু অভিনেত্রীর কাজ সারা জীবন অভিনয় জগতে থেকে যাবে।

বাঙালির অভিজাত ঠাকুর পরিবারের মেয়ে শর্মিলা। দীর্ঘদিন বলিউডে কাজ করার পর বিয়ে করেন ভিন্নধর্মী মনসুর আলি খান পতৌদিকে। জনপ্রিয় ক্রিকেটারের সাথে সংসার বাঁধেন অভিনেত্রী। সাইফ আলী খান, সাবা আলী খান আর সোহা আলি খানের মা তিনি। মায়ের পথ অনুসরণ করে সাইফ আলী খান পাড়ি দেন বলিউডে। তারপর নিজের অভিনয় দক্ষতার মাধ্যমে হয়ে ওঠেন বলিউডের জনপ্রিয় অভিনেতা। কিন্তু সোহা আলী খান প্রথমে অভিনয়ের আমলেও বর্তমানে লেখালেখি নিয়েই ব্যস্ত আছেন তিনি।

এছাড়াও সাইফ আলী খানের বিয়ে হয় কারিনা কাপুরের সাথে। বাড়ির বউ বলিউডের প্রথম সারির অভিনেত্রীদের মধ্যে একজন। এছাড়াও শর্মিলা ঠাকুরের বড় নাতনি সারা আলি খান। ইনিও নতুন প্রজন্মের অভিনেত্রীদের মধ্যে প্রথম সারির অভিনেত্রী। তবে অভিনেত্রী সারা আলি খান মনে করেন তিনি তাঁর ঠাকুমা শর্মিলা ঠাকুরের অভিনয় দক্ষতার সিকি ভাগও পাননি। এমনকি অভিনেত্রী নাকি তাঁর ঠাকুমার নাতনি হওয়ার যোগ্য নন।

সম্প্রতি ঠাকুমার বিষয়ে বেশ কিছু কথা শেয়ার করেন অভিনেত্রী সারা আলি খান। সারা বলেন, ‘বড়ি আম্মা’র (শর্মিলা ঠাকুর) সাথে নাকি অভিনেত্রীর প্রায়ই কথা হয়। রীতিমত গল্প করেন অভিনেত্রী আত্মার ঠাকুমা। তবে ঠাকুর মার সাথে ঠাকুমার ক্যারিয়ার নিয়ে বিশেষ কিছু আলোচনা কখনো হয়নি বলে জানিয়েছেন অভিনেত। সারা আরো বলেন, অভিনেত্রী ঠাকুরমা তৎকালীন সময় যথেষ্ট শিক্ষিত মহিলা। আর বর্তমানে যে কোন বিষয় নিয়ে তাঁর প্রচুর আগ্রহ। এমনকি সাধারণ জ্ঞানও অফুরন্ত অভিনেত্রীর।

সারাটা ঠাকুরমা সম্পর্কে বলেন শর্মিলার নাকি পৃথিবীকে দেখার একটি আলাদাই দৃষ্টিভঙ্গি আছে। সেটা নিয়েই সারার সাথে বেশ আলোচনা হয় আর বেশিরভাগ সময়টাই শুধু এই বিষয়ে আলোচনা হয়। আর তাছাড়াও সারা বলেন এমন একজন বর্ষিয়ান অভিনেত্রীর সান্নিধ্য পাওয়া ভাগ্যের বিষয়। তাই তাঁর সময় কার ইন্ডাস্ট্রি তাঁর সময়কার অভিনয় নিয়ে আলোচনা করাটা জরুরী।

এরপরই মানুষের প্রশ্ন থাকে যদি কখনো সারা ঠাকুমা শর্মিলা ঠাকুরের কোন বায়োপিক হয় আর সেখানে যদি অভিনেত্রী সারা শর্মিলা ঠাকুরের ক্যারেক্টারে অভিনয় করার সুযোগ পান তবে কি তিনি সেটা করবেন? সে বিষয়ে অভিনেত্রী সারা বলেন শর্মিলা ঠাকুরের আভিজাত্য আর মাধুর্য পর্দায় ফুটিয়ে তোলা, চাট্টিখানি কথা নয়। আর সেজন্যই তিনিও ওই চরিত্রে অভিনয় করার যোগ্য কিনা সে বিষয়ে যথেষ্ট সন্দেহ আছে অভিনেত্রীর।

Back to top button