বলিউড

আদর্শ বউমা ক্যাটরিনা! আলাদা করে নিজের সংসার বানালেও শ্বশুর বাড়ির সমস্ত নিয়ম রীতি মেনেই চলেছেন কৌশল পরিবারের নতুন বৌমা ক্যাটরিনা

অবশেষে নিজের স্বপ্নের রানী কে বিয়ে করে সুখী দাম্পত্য জীবন কাটাচ্ছেন ভিকি কৌশল। ক্যাটরিনা কে নিয়ে এখন তার সুখের সংসার। ইতিমধ্যেই হানিমুন সেরে দেশে ফিরেছেন নতুন তারকা দম্পতি। বিয়ের পর থেকেই ভক্তদের সঙ্গে ভাগ করে নিচ্ছে নিজেদের ছোট ছোট সুখের মুহূর্তের কিছু ছবি। বর্তমানে ক্যাটরিনা নিজের শ্বশুরবাড়ি আন্ধেরিতে ভিকির বাবা-মার অ্যাপার্টমেন্টেই রয়েছেন। বিয়ের পর নিষ্ঠা ভাবে সকল নিয়ম কানুন পালন করে চলেছেন ক্যাটরিনা। শ্বশুর বাড়ি পৌঁছানোর সময় গাড়ি থেকে নেমে পাপারাজ্জিদের ক্যামেরাবন্দি হলেন অভিনেত্রী।

গাড়ির পেছনের সিটে বসে ফোনে কথা বলতে ব্যস্ত ছিলেন অভিনেত্রী। তার পরনে ছিল ধূসর রঙের জ্যাকেট, চোখে ছিলো সানগ্লাস, মুখে ছিল মাস্ক। তবে সবকিছু ছাপিয়ে তার হাতের নতুন বৌমার লাল চূড়া ছিল সব থেকে বেশি আকর্ষণীয় ছিল। বিয়ের পর থেকে সমস্ত নিয়মকানুন মন দিয়ে পালন করছেন ক্যাটরিনা তা তার হাতের চূড়া দেখলেই তা বোঝা যাচ্ছে। ভিকি কৌশল ইতিমধ্যেই নিজের কাজের সূত্রে মুম্বাইয়ের বাইরে গিয়েছেন। যার ফলে ক্যাটরিনাকে একাই নিজের শ্বশুর বাড়িতে প্রবেশ করতে দেখা গিয়েছে।

সম্প্রতি কয়েকদিন আগেই ভিকি কৌশল নিজের ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতে ক্যাটরিনা এবং তার হাতের একটি যুগলবন্দি ছবি আপলোড করেছিলেন এবং ক্যাপশনে লিখেছিলেন হুম উপরে এঁকে দিয়েছিলেন ভালবাসার চিহ্ন।

৯ই ডিসেম্বর অনেক কানাঘুষো জল্পনা-কল্পনার পড়ে ক্যাট এবং ভিকি কৌশল গাঁটছড়া বেঁধেছিলেন রাজস্থানের এক রাজকীয় ফোর্ট। বিয়েতে উপস্থিত আমন্ত্রিতদের কড়া বার্তা দেয়া হয়েছিল যে কেউ যাতে সেখানে মোবাইল ফোন ব্যাবহার না করে বা কোন ক্যামেরার সংক্রান্ত যন্ত্র যেনো না আনে। সাথে যেন তাদের বিয়ের কোন ছবি তোলা না হয় তবে সেই সমস্ত নিয়ম ভঙ্গ করে ভিকি এবং ক্যাটরিনা নিজেরাই তাদের ইনস্টাগ্রাম একাউন্ট থেকে বিয়ের বিভিন্ন মুহূর্তের ছবি শেয়ার করেছিলেন ভক্তদের সঙ্গে। এরপর ১০ই ডিসেম্বর জয়পুর থেকেই নিজেদের হানিমুনের জন্য উড়ে গিয়েছিল ভিকি এবং ক্যাট।

জুহুতে একটি বিলাসবহুল ফ্ল্যাট ভাড়া নিয়েছেন ভিকি এবং ক্যাট। সেখানে গত রোববার আয়োজন করা হয়েছিল গৃহ প্রবেশের পুজো। ৫০০০ স্কয়ার ফুট এই ফ্ল্যাট আরবসাগর মুখি। ইতিমধ্যেই ১.৭৫ কোটি টাকা সিকিউরিটি ডিপোজিট জমা দিতে হয়েছে নবদম্পতিকে। তিন বছরের থাকার চুক্তি রয়েছে তাদের প্রতি মাসে ৮ লক্ষ টাকা ভাড়া দিতে হবে ভিক্যাট কে।

Back to top button