বলিউড

রিয়ালিটি শো সেনসেশন অনন্যা চক্রবর্তীর বিস্ফোরক পোস্ট। বললেন, এত বড় জায়গায় কাজ করলেও বাংলা থেকে কেউ শুভেচ্ছা জানায়নি!

সোশ্যাল মিডিয়ায় বিস্ফোরক অনন্যা চক্রবর্তী। হৃত্বিক রোশনের ছবি ‘বিক্রম বেধা’র ‘অ্যালকোহলিয়া গানের গায়িকা রীতিমতো অভিমান উগড়ে দিলেন ইন্ডাস্ট্রির সিনিয়রদের বিরুদ্ধে। তিনি জানিয়েছেন, মুম্বাইয়ের এত বড় প্রোডাকশন হাউজের অধীনে ছবিতে গান গাওয়ার পরও মধুবন্তী বাগচী ও জয় সরকার ছাড়া তাকে কেউ বাংলা থেকে শুভেচ্ছা জানায়নি।

অনন্যা তার পোস্টে লিখেছেন,”বাংলা ইন্ডাস্ট্রির অংশ হওয়ার সবথেকে বড় হতাশা কি জানেন? মধুবন্তী বাগচী ও জয় সরকার ছাড়া বাংলা ইন্ডাস্ট্রির কোন সিনিয়র শুভেচ্ছা জানায়নি আমাকে। পাশাপাশি আমার কো- সিঙ্গার স্নিগ্ধজিৎদাকেও শুভেচ্ছা জানায়নি। বহু বছর পর বাংলার দুই ছেলে মেয়ে যে বলিউডে এত বড় ব্যানারের গান গাইলো, সেই প্রেক্ষিতে ফোন বা হোয়াটসঅ্যাপে “ভালো গেয়েছিস” অব্দি লিখে পাঠালো না কেউ। কিন্তু আমরা সারা জীবন তাদেরকে অনুসরণ করে গিয়েছি।”

ক্ষোভ প্রকাশ করে এই নবীন গায়িকা আরো লেখেন,”ওনাদের কিচ্ছু আসে যায় না। ভবিষ্যতে বলিউডের আরো বড় বড় মানুষদের জন্য আমরা প্লে ব্যাক করব। আমাদের গান যারা শুনেছেন তাদের প্রত্যেককে ধন্যবাদ।” অনন্যা চক্রবর্তীর এই পোষ্ট ঘিরে এখন শুরু হয়েছে জল্পনা।

শ্রোতাদের পাশাপাশি শিল্পীরাও দ্বিধাবিভক্ত হয়ে গেছেন।গায়ক মেখলা দাশগুপ্তের মতে অনন্যার এই অভিযোগ অনেকটা নিজের ঢাক নিজে পেটানোর মতো।আবার সুরকার জয় সরকার বলেছেন,”এটাই তো আমাদের বাঙালিদের সমস্যা।তুমি এগিয়ে চলো।” পাশাপাশি মধুবন্তীও অনন্যার এই সাফল্যকে সাধুবাদ জানিয়েছেন। গত বুধবার অনন্যা ফেসবুকে এই পোস্টটি করেছিলেন,কিন্তু এখন সেটি হটাৎ উধাও হয়ে গেছে।যদি তিনি নিজেই এই পোস্টটি মুছে দিয়ে থাকেন তবে সবার প্রশ্ন তিনি কেনো আবার বিষয়টি নিয়ে মুখ খুলতে গেলেন!

Back to top button