Story

বনগাঁর মেয়ে অরুনিতা অসাধারণ গান গেয়ে নিজের স্বপ্ন পূরণ করল ইন্ডিয়ান আইডলের মঞ্চে, সোশ্যাল মিডিয়ায় বইছে শুভেচ্ছার বন্যা

গান হল এমন এক জাদু মন্ত্র যা মন খারাপের সময় দারুন কাজ করে। ম্যাজিকের মত মন ভালো করে দেয়। বর্তমানে বিভিন্ন চ্যানেলে গানের রিয়েলিটি শো গুলো সকলের প্রিয়। এই রিয়েলিটি শো গুলোর মধ্যে ‘ইন্ডিয়ান আইডল’ হলো অন্যতম।

প্রতিটি সিজন এই দারুন দারুন কিছু প্রতিভা এই মঞ্চ থেকে বের হয়। প্রতিটি প্রতিযোগী তাদের দুর্দান্ত সুরেলা কণ্ঠ দিয়ে বিচারকদের মন জয় করে। বহু প্রতিযোগী এই মঞ্চ থেকে নিজেদের গায়ক-গায়িকা হওয়ার স্বপ্ন পূরণ করে।

সম্প্রতি শেষ হলো সোনি সম্প্রচারিত ইন্ডিয়ান আইডল ১২ গানের রিয়েলিটি শো টি। এই সিজনের ইন্ডিয়ান আইডলে অংশগ্রহণ করেছিল আমাদের বাংলার মেয়ে অরুনিতা কাঞ্জিলাল। অরুনিতা উত্তর 24 পরগনা বনগাঁ জেলার মেয়ে। বর্তমানে সবার মুখে মুখে ছড়িয়ে পড়েছে অরুনিতার নাম।

অরুনিতা তার অসামান্য গানে মুগ্ধ করেছে প্রতিটি বিচারকে। এবারে সেই স্বপ্ন পূরণ করল বাংলার মেয়ে অরুনিতা। এবারের ইন্ডিয়ান আইডলের বেশ জনপ্রিয়তা লাভ করেছিল পবনদ্বীপ এবং অরুনিতা। বাকি প্রতিযোগীরাও তাদের গানে মুগ্ধ করেছেন দর্শকদের তবে অরুনিতা এবং পবনদ্বীপের জুটি বেশ জনপ্রিয়তা লাভ করেছে দর্শকমহলে।

ছোটবেলা থেকেই গানের প্রতি বিশেষ টান অরুনিতা। তার সেই ভালোবাসা থেকেই মায়ের কাছে প্রথম গানের শিক্ষা নেওয়া, মা ছিল তার গানের প্রথম গুরু। তারপরে আস্তে আস্তে নিজেকে প্রতিষ্ঠা করা এবং ইন্ডিয়ান আইডলের মঞ্চে এসে প্রমাণ করা।

অরুনিতার স্বপ্ন সে একদিন বড় গায়িকা হবে সেই স্বপ্নপূরণের উদ্দেশ্যেই ছোট থেকে বিভিন্ন রিয়েলিটি শোতে অংশগ্রহণ করে অরুনিতা। ইন্ডিয়ান আইডল এ অংশগ্রহণ করার আগে zee টিভি সারেগামাপা লিটিল চ্যাম্প এ অংশগ্রহণ করে। অরুনিতা সেখানেও বিজয়ী হয় তার পরেই তার ইন্ডিয়ান আইডলের মঞ্চে আসা।

সম্প্রতি হিমেশ রেশমি পরিচালিত অরুনিতা এবং পবন দ্বীপের একসাথে জুটির একটি গানের অ্যালবাম রিলিজ করে। অ্যালবামের নাম হল ‘হিমেশ কি দিলসে’। সেই অ্যালবামে হিমেশ রেশমির লেখা এবং সুর দেওয়া গান ‘তেরি উমীদ’ গানের গলা মিলিয়েছেন অরুনিতা এবং পবনদ্বীপ।

হিমেশ নিজেই সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে এই সুসংবাদ সকলকে জানিয়েছেন। ইতিমধ্যেই আমরা সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে দেখতে পেয়েছি অসাধারণ কন্ঠে অরুনিতা এবং পবনদ্বীপ গানটি যা ইতিমধ্যে বেশ ভাইরাল হয়েছে নেট দুনিয়ায়।

Back to top button