টলিউড

সময় খুব খারাপ চলছে একসময়কার সুপারহিট গায়ক রূপঙ্কর বাগচীর! কলকাতার নামি রেস্তোরাঁ রূপঙ্করের গান আর না বাজানোর সিদ্ধান্ত নিল

কেকে বিতর্কে জড়িয়ে কেকে র মৃত্যুর পর আরো কোণঠাসা করে দেওয়া হলো বাংলার গায়ক রূপঙ্কর বাগচী কে। কলকাতার একটি নামী রেস্তোরাঁ রূপঙ্কর বাগচীর গাওয়া ‘mio amore’ র গান না বাজানোর সিদ্ধান্ত নিলেন। তাদের রেস্তোরাঁ তে রূপঙ্কর বাগচীর আর কোনো গানই বাজানো হবে না বলে জানিয়ে দেওয়া হলো। একটি বিবৃতির মধ্যে এই সিদ্ধান্ত জানিয়েছেন তারা।

যাদবপুরের নামি রেস্তোরাঁ ‘ভূতের রাজা দিলো বর’ এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে। বেশ কিছুদিন ধরেই এই রেস্তোরাঁর নাম চারিদিকে ঘুরছে। খুব অল্প দিনেই বাঙালি খাওয়ার এবং নিজেদের আয়োজন দিয়ে সকলের মন জয় করে নিয়েছে এই রেস্তোরাঁ। তাদের রেস্তোরাঁর ভিতরে বাঙালি সব গায়কদের গান বাজানো হতো। তাই এবারে এই রেস্তোরাঁ ঠিক করেছে এবার থেকে রূপঙ্কর বাগচীর কোনো গান তারা আর বাজাবেন না। বিবৃতি তে লেখা আছে ‘জনস্বার্থ এবং মানুষের বিক্ষোভের কথা মাথায় রেখে রূপঙ্কর বাগচির গান না বাজানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হল। আমরা ক্ষমাপ্রার্থী।’ এছাড়াও mio amore তরফ থেকে জানানো হয়েছে যে রূপঙ্করের গাওয়া জিঙ্গেল নিয়ে খুব জলদি একটা সিদ্ধান্ত নেবেন।

আসলে জনপ্রিয় গায়ক কেকে মারা যাওয়ার কয়েক ঘণ্টা আগেই লাইভে এসে রূপঙ্কর বাগচী কেকে কে নিয়ে নানান ধরনের মন্তব্য করেছেন। বিশেষ করে তার ‘হু ইস কেকে’ প্রশ্নটি নিয়ে তোলপাড় সারা সোশ্যাল মিডিয়া। একপ্রকার কোণঠাসা করে দেওয়া হয়েছে তাকে। কেকে কে নিয়ে এই ধরনের মন্তব্য তারা কিছুতেই মেনে নিতে পারছেন না। একজন নামি শিল্পী কি করে অন্য আরেকজন শিল্পী কে এই ধরনের কথা বলে অপমান করতে পারেন? প্রশ্নের মুখে রূপঙ্কর।

Back to top button