টলিউড

‘এই বয়সে ভগবানের প্রতি এরকম ভক্তি কোনো বাচ্চার থাকে না’! নাম-কীর্তনে মাতোয়ারা রাজ-পুত্র! ধুতি, পাঞ্জাবিতে সেজে দু’হাত তুলে ‘জয় জগন্নাথ’ ধ্বনি, জগন্নাথ দেবের স্নানযাত্রা উপলক্ষে কীর্তনের আসর বসলো রাজ চক্রবর্তীর বাড়ি

গতকাল ছিল জগন্নাথ দেবের স্নান যাত্রা। পুরীর জগন্নাথ মন্দির থেকে শুরু করে সাধারণ মানুষের ঘরে ঘরে কাল জগন্নাথ দেব পূজিত হয়েছেন বলিউডের অন্যতম জনপ্রিয় পরিচালক ব্যারাকপুরের তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদ চক্রবর্তীর বাড়িতে ছিল জগন্নাথ দেবের স্নানযাত্রা উৎসব। সেই কারণেই মঙ্গলবার রাজ চক্রবর্তীর বাড়িতে বসেছিল কীর্তনের উৎসব ইসকনের মন্দির থেকে এসেছিল কীর্তনের দল। ফুলমালা দিয়ে সাজানো ছিল জগন্নাথ বলরাম সুভদ্রার মূর্তি। সুন্দর করে সাজানো হয়েছিল চারিদিক চন্দন দুর্গন্ধে ভরে উঠেছিল গোটা ঘর উপস্থিত ছিল বহু আমন্ত্রিত অতিথিরা। পরিবার আত্মীয়-স্বজন সকলের মধ্যেই সে দিনের মধ্যে মনে ছিল শুভশ্রী রাজের পুত্র ইউভান। ঐদিন ইউভান সাদা ধবধবে ধুতি-পাঞ্জাবিতে সেজে উঠেছিল। কীর্তনের তালে তালে ইউভান ও নেচে উঠছিল তার পরেই হঠাৎ করে বলে উঠলো ‘জয় জগন্নাথ’ ইউভানের মুখে এই কথা শুনেই সকলেই তো অবাক।

জগন্নাথ দেবের প্রতি রাজ চক্রবর্তীর পরিবারের ভক্তি বরাবরই বেশি। সময় সুযোগ পেলে মাঝে মধ্যেই ছুটে যান পুরীর জগন্নাথ দেবের মন্দিরে। ২০২১ এর বিধানসভা নির্বাচনের আগেও পুরীর মন্দিরে জগন্নাথ দেবের আশীর্বাদ নিতে পৌঁছেছিলেন রাজ। হাবজি গাবজি মুক্তির আগেও পুজো দিয়েছিলেন রাজ শুভশ্রী। এই বিষয়ে রাজ চক্রবর্তী বলেছেন ‘‘সব সাফল্যই উপরওয়ালার আশীর্বাদে। ঈশ্বরকে সাক্ষী রেখে তাই আমরা উদ্‌যাপনে মেতেছি।’’ ছেলের প্রসঙ্গে প্রচ্ছন্ন গর্বের সুর পরিচালকের কথায়, ‘‘আমরা কেউ কিচ্ছু শিখিয়ে দিইনি ওকে। সব নিজে থেকেই করেছে। পুজো শেষে মাটিতে শুয়ে সাষ্টাঙ্গে প্রণামও সেরেছে। আমাদের স্বপ্ন, এ ভাবেই বেড়ে উঠুক ইউভান।’’

চক্রবর্তী পরিবারের মাঝে মধ্যেই জগন্নাথদেবের আরাধনা হয়ে থাকে। শুভশ্রীর দিদির ছেলে অনীশ পূজা পাঠে বিশ্বাসী। দারুন সুন্দর পুজো করে। এবারেও সে প্রতিবারের মতন জগন্নাথ দেবের পুজো করেছে।

Back to top button