বলিউডStory

তিন তালাক নষ্ট করেছিল অভিনেত্রী মীনাকুমারীর জীবন! বাঁচার জন্য শেষ পর্যন্ত বাবার বন্ধুকে বিয়ে করেন বলিউডের ‘ট্র্যাজেডি কুইন’

বলিউডে এমন অনেক অভিনেত্রীর রয়েছেন যারা অভিনয় জগৎ থেকে বিদায় নিলেও নিজের প্রতিভা এবং সৌন্দর্যের জোরে আজও নেটিজেনদের মনে স্থায়ীভাবে রয়ে গিয়েছেন। তেমনই একজন হলেন বলিউড অভিনেত্রী মীনা কুমারী। ১৯৩৩ সালের আগস্ট মাসে মুম্বাইয়ের এক অতি দরিদ্র পরিবারে জন্মগ্রহণ করেছিলেন তিনি।

খারাপ আর্থিক অবস্থার জন্য ছোট থেকেই নানান কঠিন পরিস্থিতির মধ্য দিয়ে সংগ্রাম করতে হয়েছিল তাকে। শেষ পর্যন্ত অর্থ উপার্জনের জন্য মাত্র 7 বছর বয়সেই বলিউডে পা রাখেন তিনি। এরপর মাত্র 19 বছর বয়সেই নির্দেশক কামাল আমরোহীকে বিয়ে করেন বলিউডের এই জনপ্রিয় অভিনেত্রী।

কিন্তু জানা যায় এরপর একবার ঝগড়ার সময় কামাল তিনবার তালাক বলে মীনার সাথে সম্পর্ক ছিন্ন করেন। কিন্তু পরে যখন কামালের রাগ কমে যায়, তিনি আবার মীনাকে বিয়ে করতে চান। কিন্তু কামালের সাথে পুনরায় সম্পর্ক শুরু করার জন্য মীনা কুমারীকে “হালালা” র সম্মুখীন হতে হয়।

ইসলাম ধর্ম অনুসারে বাবার বন্ধু অমন উল্লাহ খানকে বিয়ে করেন মিনা কুমারী। তার থেকে তালাক নেওয়ার পরেই দ্বিতীয়বারের জন্য তিনি বিবাহ করতে পেরেছিলেন কামালকে। কিন্তু জানা যায় হালালা নীতির কারণে মানসিকভাবে বেশ ভেঙে পড়েছিলেন অভিনেত্রীর। ফলস্বরূপ অনিয়মিত মদ্যপান শুরু করেন তিনি। শেষ পর্যন্ত মাত্র 39 বছর বয়সে অকালপ্রয়াণ ঘটে বলিউডের এই প্রতিভাবান অভিনেত্রীর।

Back to top button