‘কতবার সেক্স করেছো’? নেটিজেনের প্রশ্নের সপাট জবাব দিলেন ‘নোয়া’ শ্রুতি দাস

বাংলা টেলিভিশনের অতি পরিচিত নাম শ্রুতি দাস। স্পষ্টবক্তা হিসাবেই ইন্ডাস্ট্রির সকলে চেনে দেশের মাটির ‘নোয়া’কে। খুব বেশিদিন ইন্ডাস্ট্রিতে এসেছেন এমনটা নয়, ‘ত্রিনয়নী’ ধারাবাহিক দিয়ে কেরিয়ার শুরু করেন, এরপর দেশের মাটি-তে চুটিয়ে অভিনয় করছেন।

তবে শ্রুতির অভিনয়, গানের গলা, নাচের দক্ষতা সবেতেই মুগ্ধ দর্শক। পাশাপাশি গায়ের রঙ নিয়েও বহুবার কটাক্ষের মুখে পড়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় সোচ্চার হয়ে শ্রুতি। ফের এক নেট নাগরিককে শালীনতার পাঠ পড়ালেন শ্রুতি।

রবিবার ইনস্টাগ্রামে ভক্তদের প্রশ্নের জবাব দিচ্ছিলেন শ্রুতি। টলিপাড়ার শ্যুটিং বন্ধ, তাই ফাঁকা সয়মে অনুরাগীদের সঙ্গে একটু আড্ডা দেওয়াই ছিল তাঁর উদ্দেশ্য। তবে এক নেটিজেন বাঁকা প্রশ্ন করে বসেন নায়িকাকে।

শ্রুতির সাহসী জবাব

পর্দার নোয়াকে শুভজিৎ নামের জনৈক ব্যক্তি প্রশ্ন করেন- ‘কতবার সেক্স করেছো’? না এই প্রশ্ন এড়িয়ে যাননি শ্রুতি। বরং পালটা জবাব দিয়েছেন।

শ্রুতির উত্তর- ‘আমি জানি না তবে ভাই তুমি তোমার মাকে একবার জিজ্ঞেস করো, বড়রাই প্রথমেই বলুক’। এই উত্তরের সঙ্গে বিছানায় বসে লজ্জায় হাত দিয়ে মুখ ঢাকা একটি ছবি পোস্ট করেন শ্রুতি। সঙ্গে লেখেন, ‘লজ্জা পাচ্ছি, কাকিমার লজ্জা পাওয়া মুখটা দেখতে চাই ভাই প্লিজ।’

শালীনতার পাঠ ভুলে মানুষের ব্যক্তিগত জীবনে অকারণে হস্তক্ষেপ একেবারেই কাঙ্খিত নন, এই কথা আমরা অনেক সময়ই ভুলে যাই। ট্রোল করাটাই সেখানে মূল উদ্দেশ্য হয়ে দাঁড়ায়, এই সোশ্যাল মিডিয়া ট্রোলিংয়ের বিরুদ্ধেই যোগ্য জবাব দিলেন শ্রুতি।

নিজের ভুল বুঝতে পেরে ওই নেটিজেন ক্ষমা চেয়ে নেন। পরবর্তীতে মেসেজ করে সে জানায়, ‘ফাইনালি আমি তোমার প্রেমে পড়ে গেলাম’।

সম্পর্কের ব্যাপারে বরাবরই খোলামেলা শ্রুতি। ‘দেশের মাটি’র পরিচালক স্বর্ণেন্দু সমাদ্দারের সঙ্গে গত কয়েক বছর ধরেই প্রেম সম্পর্কে আবদ্ধ তিনি।

প্রেমিকের সঙ্গে বয়সের ফারাক থাকলেও সেই বিষয়টাকে এক্কেবারে পাত্তা দিতে রাজি নন তিনি। বরং শ্রুতির কাছে তাঁর প্রেরণা, বন্ধু, পথপ্রদর্শক সবটাই স্বর্ণেন্দু।

বিশ্বাস, বোঝাপড়া এবং সতর্কতা এই তিনটে বিষয় সম্পর্ক টিকিয়ে রাখবার জন্য সবচেয়ে জরুরি অনুরাগীদের এদিন জানান শ্রুতি। সবরকম নেগেটিভিটি থেকেও তাঁকে আগলে রাখেন প্রেমিক, জানাতে ভোলেননি নায়িকা।