বাংলা সিরিয়াল

দ্যুতির জন্য ভাঙল সংসার? তাহলে কি ঋদ্ধি – খড়ির ছাড়াছাড়ি! কোথায় চলে গেল খড়ি?

ফের একবার দূরে সরে যাচ্ছে ঋদ্ধি – খড়ি। পুরনো অভিমানের রেশ কাটতে না কাটতেই ফের অশান্তির কালো ছায়া গাঁটছড়ায়। খড়ির উপর প্রতিশোধ নেওয়ার জন্য ঋদ্ধি ও দ্যুতির সম্পর্ক নিয়ে নতুন জাল বুনছে কিয়ারা। খড়ির মনে পুরনো ঘটনা টেনে তাকে কিয়ারা মনে করিয়ে দিয়েছে যে, বউ হিসাবে দ্যুতিকে প্রথম পছন্দ ছিল ঋদ্ধির। পরিস্থিতির চাপে পড়ে ঋদ্ধি খড়িকে বিয়ে করেছে ঠিকই,কিন্তু সে এখনো দ্যুতিকে ভুলতে পারেনি।

কিয়ারার এই কথায় প্রথমে খড়ি আমল না দিলেও ধীরে ধীরে তার মাথায় সন্দেহ দানা বাঁধতে থাকতে। পার্টির মাঝখানেই ঋদ্ধি ও দ্যুতিকে একসাথে বেরিয়ে যেতে দেখে সে আরো আশঙ্কিত হয়ে পড়ে। খড়ি তার স্বামীর কাছে জানতে চায় আসল সত্যিটা কি! এখনো কি সে দ্যুতিকে ভালোবাসে? যদিও খড়ির এই কথার কোনো গুরুত্বই দিতে দেখা যায় না ঋদ্ধিকে।

খড়ি যতই সন্দেহ করুক না কেন সত্যি কথাটা ঋদ্ধি বা দ্যুতি কেউই বলতে চায়নি। সে বহুবার চেষ্টা করে তার স্বামীর সাথে কথা বলার, কিন্তু ঋদ্ধি সম্পূর্ণভাবে চুপ থাকায় কিয়ারার কথা সে অলক্ষে বিশ্বাস করতে শুরু করে। আসল ব্যাপারটা হলো, ঋদ্ধি তার স্ত্রী খড়ির জন্য একটি বিশেষ সারপ্রাইজ উপহার তৈরি করার চেষ্টা চালাচ্ছে। সেই উপহার তৈরিতে ঋদ্ধিকে সাহায্য করছে দ্যুতি। এই বিষয় কথা বলার জন্য ঋদ্ধিকে ফোন করে দ্যুতি।

ঘটনাচক্রে, দ্যুতির ফোনটি ধরে খড়ি। দিদির কথা শোনার পর খড়ির সন্দেহ আরো মজবুত হয়।যদিও এই অবস্থায়ও ঋদ্ধি সত্যি কিছুই জানায়নি খড়িকে।উল্টে সে খড়িকে বলে যে সে যেন বাড়ি চলে যায়।এই বাড়ি আসার পিছনেই খড়ির জন্য অপেক্ষা করছে চমক।এখন দেখার সব তিক্ততা ভুলে ফের ঋদ্ধি আর খড়ি আবার কাছে আসতে পারে কিনা!

Back to top button