টলিউড

সোহিনী – সপ্তর্ষির একমাত্র ছেলে “বাবু” র ৩৪ পূর্তিতে বেজায় আনন্দিত দম্পতি! ছেলের জন্মদিনে কি বিশেষ উপহার মা বাবার?

আলিপুর চিড়িয়াখানায় এক প্রিয় শিম্পাঞ্জি হল “বাবু”। চিড়িয়াখানার দর্শকদের মধ্যে বেশ ভালই জনপ্রিয়তা রয়েছে এই বাবুর। তাঁকে দেখার জন্য চিড়িয়াখানায় যে সকল দর্শক আছেন তারা মুখিয়ে থাকেন। চলতি মাসের আগামী ২৩ শে অক্টোবর ৩৩ পেরিয়ে ৩৪ এ পা রাখবে সে। আর বাবুর বেশ ভালোমতোই জন্মদিন পালন করতে চলেছে চিড়িয়াখানার কর্তৃপক্ষ। বাবুর বয়ানে ছাপানো হয়েছে তাঁর জন্মদিনের কার্ড। আর সেই কার্ড ইতিমধ্যেই পৌঁছে গিয়েছে বাবুর মা বাবা অভিনেত্রী সোহিনী সেনগুপ্ত এবং অভিনেতা সপ্তর্ষি মালিকের কাছে। একটা ছেলের জন্মদিনে কি বিশেষ পরিকল্পনা করলেন এই দম্পতি? চলুন জেনে নেওয়া যাক।

অভিনেত্রী মা সোহিনী ছেলের জন্মদিন নিয়ে বেশ উচ্ছ্বসিত হয়ে রয়েছেন। বাবুর ৩৩ বছর পূর্তি উপলক্ষে কেক কাটা হবে চিড়িয়াখানাতে। পাশাপাশি মেনুতে থাকবে বাবুর সমস্ত প্রিয় খাবার। যেমন গাজর, আপেল, তরমুজ, খেজুর, দুধ-পাউরুটি, তরমুজের মতো আরো অনেক কিছু। আগামী ২৬ শে অক্টোবরের জন্য বাবু নিজেও খুব উত্তেজিত হয়ে আছে। কারণ সেও জানে সেদিন তাঁর আমন্ত্রিত হয়ে তাঁর সাথে দেখা করতে আসবে প্রচুর মানুষ। সাথেই থাকবেন তাঁর বাবা-মা সোহিনী এবং সপ্তর্ষি।

মা সোহিনী উচ্ছসিত আনন্দে বললেন ২৬ তারিখ আলিপুর চিড়িয়াখানায় উপস্থিত থাকবেন তাঁরা দুজনেই। ছেলের জন্মদিনের বিশেষ প্ল্যান বললেন অভিনেত্রী।অভিনেত্রীর কথায়, “বাবুর পছন্দের খাবার নিয়ে যাব আমরা। আমন্ত্রণপত্র আগেই পেয়েছি। আলিপুর চিড়িয়াখানায় শুধু বাবু নয়, সব পশুদেরই খুব যত্ন নেওয়া হয়। আশীষ সামন্তও ওকে খুব ভালবাসেন। তাই বাবুর জন্মদিনে এই এলাহি আয়োজন করেছেন তিনি। এই সিদ্ধান্ত আমার খুবই ভাল লেগেছে”।

উল্লেখ্য হয়তো অনেকেই জানেন চিড়িয়াখানাতেও পশু পাখিদের দত্তক নেওয়া যায়। ঠিক যেমন বাবুকে দত্তক নিয়েছেন সোহিনী সপ্তর্ষি। গত বছর জানুয়ারি মাসেই এ দত্তক নেওয়ার প্রক্রিয়া সম্পন্ন করেন তাঁরা। আর তারপর থেকেই প্রত্যেক মাসে বাবুর খরচা বাবদ কিছু টাকা আলিপুর চিড়িয়াখানাকে দিয়ে থাকেন এই দম্পতি। সেই খরচা দিয়ে বাবুর খাওয়া দাওয়া চিকিৎসা এবং অন্যান্য দেখভাল বেশ ভালো মতোই চলে যায়। যদিও অভিনেত্রী জানান এই খরচা একেবারেই ন্যূনতম। অভিনেত্রী দর্শকদের উদ্দেশ্যে আরও আবেদন জানান যে তাঁরা যেমন বাবুকে দত্তক নিয়েছেন তেমনি যেন অন্যরাও কিছু পশু পাখিদের দত্তক নেন।

Back to top button