বাংলা সিরিয়াল

চারুকে সাপোর্ট দিতে আসছে আর্য্য একেই বলে প্রথম বউয়ের প্রতি টান!পুরনো ভালোবাসা কি এতো সহজে ভোলা যায়! নবাবনন্দিনী আর সাহেবের চিঠির স্লট দেখে বলছেন নেটিজেনদের একাংশ

স্টার জলসায় গত ২৭শে জুন থেকে সন্ধ্যে সাড়ে ছটায় শুরু হয়েছে ‘সাহেবের চিঠি’ আর আজ অর্থাৎ ৮ ই আগস্ট থেকে স্টার জলসা সন্ধ্যে ছয়টায় শুরু হলো নতুন ধারাবাহিক ‘নবাব নন্দিনী’। সাহেবের চিঠি ধারাবাহিকের লিড চরিত্র হল দেবচন্দ্রিমা সিংহ রায় আর প্রতীক সেন অন্যদিকে নবাব নন্দিনী ধারাবাহিকের মুখ্য চরিত্র হলো ইন্দ্রানী আর রিজুয়ান। সাহেবের চিঠিতে দেখানো হয়েছে এমন একজন সুপারস্টার যে এক্সিডেন্ট তার পা হারিয়েছে ও জীবনের থেকে মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে, তাকে আবার জীবন যুদ্ধে নতুন করে জেতাতে হাজির হয়েছে পোস্ট ওম্যান চিঠি। অন্যদিকে নবাব নন্দিনী ধারাবাহিকটি হলো একটি ফুটবলারের গল্প ও এক স্বাবলম্বী মেয়ের গল্প।

এ প্রসঙ্গে উল্লেখ্য যে সাহেবের চিঠি ধারাবাহিকের চিঠি চরিত্রটি তে অভিনয় করা দেবচন্দ্রিমা এর আগে সাঁঝের বাতি ধারাবাহিকে অভিনয় করেছেন। সেখানে তার অভিনীত চরিত্রটির নাম ছিল চারু। অন্যদিকে তার অপজিটে সেই ধারাবাহিকে অভিনয় করেছিলেন রিজুয়ান। তার অভিনীত চরিত্র টির নাম ছিল আর্য। আর্য এক্সিডেন্ট এর পর থেকে তার চোখ হারায় আর তার জীবনে আলো হয়ে আসে চারু, চারুর চোখ থেকেই সে আবার জীবনে আলো ফিরে পায়। সাঁঝের বাতি ধারাবাহিকে চারু আর আর্যর রসায়ন দর্শকদের ভীষণ পছন্দ হয়েছিল। কিন্তু এইবার স্টার জলসায় চারু আর আর্য অর্থাৎ দেবচন্দ্রিমা রিজুয়ান চিঠি আর নবাব হয়ে দুটো ভিন্ন ভিন্ন ধারাবাহিক এ কাজ করছেন।

এইবার ‘সাহেবের চিঠি’ সাড়ে ছয়টায় এবং ‘নবাব নন্দিনী’ ছয়টায় আসার পর একদল দর্শক মজা করে বলছেন, প্রাক্তন স্ত্রীকে সাপোর্ট দিতেই স্বামী এসে হাজির। একজন নেটিজেন মজা করেই সোশ্যাল মিডিয়ায় লিখেছেন,“ চারুকে সাপোর্ট দিতে আসছে আর্য্য একেই বলে প্রথম বউয়ের প্রতি টান। পুরনো ভালোবাসা কি এতো সহজে ভোলা যায়…!!” ক্যাপশন দেখে হাসছেন সকলে! ক্যাপশনটি মজার ছলে নেওয়া হলেও সকলেই বিষয়টা খুব উপভোগ করছেন।

Back to top button