বাংলা সিরিয়াল

রাইমার সামনে এলো আসল সত্যি! চিঠি এবং সাহেবের বিয়ে ভাঙতে কি সক্ষম হবে রাইমা? দেখুন ‘সাহেবের চিঠি’ ধারাবাহিকের জমজমাট পর্ব

জি বাংলা এবং স্টার জলসায় শুরু হচ্ছে একের পর এক নতুন ধারাবাহিক। ভিন্ন গল্প নিয়ে ধারাবাহিকগুলি দর্শকদের মন জয় করে নিতে সক্ষম হচ্ছে খুব সহজেই। আর সাম্প্রতিক কয়েকদিন আগেই শুরু হওয়া একটি নতুন ধারাবাহিক হল স্টার জলসার ‘সাহেবের চিঠি’। কিছুটা ভিন্ন ধরনের গল্পই তুলে ধরা হচ্ছে এই ধারাবাহিকে। এই ধারাবাহিকে কেন্দ্রীয় চরিত্রে দেখা যাচ্ছে সাঁঝের বাতি ধারাবাহিকের কেন্দ্রীয় চরিত্র দেবচন্দ্রিমা এবং মোহর ধারাবাহিকের কেন্দ্রীয় চরিত্র প্রতীককে।

ধারাবাহিকে দেবচন্দ্রিমার চরিত্রের নাম চিঠি। সে একজন মহিলা পিয়ন এবং প্রতীকের চরিত্রের নাম সাহেব সে একজন অনেক বড় সেলিব্রেটি। হাজার হাজার ভক্ত রয়েছে তার। ধারাবাহিকের প্রথমেই দেখানো হয় যে চিঠি একজন খুব সাধারণ পরিবারের মেয়ে। মহিলা পিয়ন হিসেবেই তার পরিচিতি রয়েছে। সাহেব হলো একজন অনেক বড় সুপারস্টার। চারিদিকে তার অনেক নাম ডাক, হাজার হাজার ভক্ত রয়েছে তার। তবে তার একটি অক্ষমতা হলো তার একটা পা নেই। কোন এক দুর্ঘটনায় সেই নিজের পা হারিয়েছে। আর সেখানে সাহেব নিজের কনফিডেন্স হারাতে থাকে। সে মনে করতে থাকে সে অক্ষম। সবাই যদি জানতে পারে সাহেব মুখার্জির একটা পা নেই তাহলে সকলেই তার থেকে মুখ ফিরিয়ে নেবে। আর চিঠি সাহেবকে সাহস যোগানোর জন্যই সবসময় চেষ্টা করতে থাকে। এভাবেই এগোতে থাকে ধারাবাহিকের গল্প।

বর্তমানে ধারাবাহিকে সাহেব এবং চিঠির বিয়ে দেখানো হচ্ছে। সাহেবের মা চিঠিকে নিজের পুত্রবধূ হিসেবে পছন্দ করেছে। সে চায় চিঠি তার সাহেবের জীবনে আসুক কারণ তার বিশ্বাস চিঠিই পারবে তার সাহেবকে নতুন জীবন দিতে। আর চিঠিও কথা দেয় যে সে সাহেব মুখার্জির কে একটা নতুন সুন্দর উজ্জ্বল জীবন ফিরিয়ে দেবে। কিন্তু সাহেবকে কে বিয়ে করছে এটা জানতে মরিয়া হয়ে উঠেছে সাহেবের বান্ধবী রাইমা। একসময় সাহেব এই রাইমাকে নিজের জীবন সঙ্গী হিসেবে পছন্দ করেছিল। কিন্তু সাহেবের সব অক্ষমতা তার চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে রাইমা সাহেবকে ফিরিয়ে দেয়। সাহেব যাতে কোনভাবেই উঠে দাঁড়াতে না পারে তার জন্য সব রকম চেষ্টাই করে রাইমা। একপ্রকার বন্ধুর মুখোশের আড়ালে শত্রুর মতো কাজ করে রাইমা। যারা ধারাবাহিকের নিত্য দর্শক তারা প্রত্যেকেই জানেন যে রাইমা এখনো পর্যন্ত জানতে পারেনি কে সাহেবের জীবনে আসতে চলেছে। কে সাহেবের মত একটা ছেলেকে বিয়ে করতে রাজি হয়েছে। তবে সেইটা জানার জন্যই এবারে সাহেবের গায়ে হলুদের দিন সাহেবের বাড়ির লোকের সঙ্গে পেছনে পেছন চলে আসে রাইমা এবং এসে দেখে সাহেবের বউ আর কেউ নয় চিঠি। আর এটা দেখার পরেই অবাক হয়ে যায় রাইমা।

এর আগে স্টার জলসার পক্ষ থেকে সাহেবই চিঠি ধারাবাহিকের একটি প্রমো ভিডিও শেয়ার করা হয় সেখানে দেখা যাচ্ছে রাইমা চিঠি এবং সাহেবের বিয়ে আটকানোর জন্য নানান কৌশল প্রয়োগ করছে। এবারে দেখার অপেক্ষা আগামী দিনে ধারাবাহিকির কি হতে চলেছে। রাইমা যে সাহেব এবং চিঠিকে সুখে শান্তিতে সংসার করতে দেবে না তা তো বেশ স্পষ্ট দর্শকের কাছে।

Back to top button