বাংলা সিরিয়াল

দ্যুতি থানায় এসে পুলিশ কে ফাঁকি দিয়ে রাহুল কে পালতে সাহায্য করলো! এবারেও বেঁচে গেল রাহুল, বারবার অন্যায় করা সত্ত্বেও শাস্তির হাত থেকে বেরিয়ে যাচ্ছে সে, ‘গাঁটছাড়া’ ধারাবাহিকে টানটান উত্তেজনা পর্ব

ইতিমধ্যে গাঁটছড়া ধারাবাহিকে টানটান উত্তেজনা পর্ব দেখানো হচ্ছে। ঋদ্ধিমান সিংহ রায়ের এক্সিবিশন সমস্ত ভন্ডুল করে দেওয়ার পরেও খড়ির সাহায্যে ঋদ্ধিমান আবারও নতুন করে নিজের এক্সিবিশন সাজিয়ে তোলে এবং সফলভাবে নিজের এক্সিবিশন সম্পন্ন করে। অন্যদিকে খড়ি জানতে পেরে যায় যে ঋদ্ধিমান সিংহ রায়ের এক্সিবিশন নষ্ট করার পেছনে রয়েছে রাহুল। আর সেখানেই রাহুলকে হাতেনাতে ধরে খড়ি। মুখে কালি মাখিয়ে রাহুল এবং তার সাঙ্গপাঙ্গদের ধরে পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয়। মুখে কালি থাকার কারণে ঋদ্ধিমান নিজের ভাই রাহুল কে চিনতে পারে না কিন্তু মায়ের চোখে কি আর ফাঁকি দেওয়া যায় রাহুলের মা ঠিকই চিনতে পেরেছে তার গুণধর ছেলে রাহুল কে। আর দ্যুতি স্পষ্ট ভাবে নিজের শ্বাশুড়ীকে বুঝিয়ে দিয়েছে যে এই সমস্ত কর্মকান্ডের পেছনে তার ছেলে রাহুল রয়েছে।

সোশ্যাল মিডিয়া গাঁটছড়া ধারাবাহিকের অসংখ্য ফ্যানপেজে রয়েছে এবং সেরকমই একটি ফ্যান পেজ থেকে গাঁটছাড়া ধারাবাহিকের একটি ভিডিও ক্লিপ বেশ ভাইরাল হয়ে পড়েছে সোশ্যাল মিডিয়াতে। ভিডিও ক্লিপ দেখা যাচ্ছে যে রাহুল এবং তার দলবলকে থানায় ধরে নিয়েছে পুলিশ এবং লকআপে ভরে বেধড়ক মারধর করছে। আর রাহুলের পেছনে ছুটে এসেছে রাহুলের মা এবং দ্যুতি দুজনেই।

কিন্তু পুলিশকে সমস্ত সত্যিটা ধরা দিলে চলবে না তাহলে রাহুলের পর্দা ফাঁস হয়ে যাবে। তাই পুলিশের কাছে ভালো মানুষ সাজার জন্য ঋদ্ধির এক্সিবিশন কে নষ্ট করেছি সেটা জানতে চাওয়ার নাটক করে দ্যুতি এবং তার শাশুড়ি দুজন মিলে। আর অন্যদিকে রাহুলকে কি করে লকাপ থেকে বের করা যায় সেই ফন্দি আঁটতে থাকে দুজনে।

আর তখনই দেখা যায় যে থানায় অজ্ঞান হয়ে যাবার মিথ্যে নাটক করতে থাকে দ্যুতি এবং দ্যুতি নিয়ে ব্যস্ত হয়ে পড়ে সকলে অফিসারের নজর এড়িয়ে দ্যুতির প্ল্যান মতই রাহুল কে জেল থেকে বের করে দেয় অন্য আরেকজন অফিসার। এই ফাকেই রাহুল থেকে বেরিয়ে যায়। সম্প্রতি এই ভিডিওটি সামনে এসেছে দর্শকদের আর কমেন্ট বক্সে ভরে ভরে সকলকে দ্যুতি এবং রাহুল এর মাকে গালিগালাজ করেছে।

Back to top button