বাংলা সিরিয়াল

‘তিড়িং বিড়িং লাফালেই কি নাচ হয়, উর্মি পুরো জোকারের মত নাচছে’! দাদাগিরি ফাইনালে অন্বেষার রঙ্গবতী গানের নাচের ভিডিও নিয়ে তুমুল সমালোচনা, অন্বেষার নাচ নিয়ে ব্যঙ্গ করলেন নেটিজেনরা

জি বাংলার জনপ্রিয় ধারাবাহিক গুলোর মধ্যে অন্যতম একটি হলো ‘এই পথ যদি না শেষ হয়’ ধারাবাহিক। বেশ কয়েক মাস হল এই ধারাবাহিক জি বাংলার পর্দায় শুরু হয়েছে। ধারাবাহিকের মাধ্যমে দর্শকের পছন্দের জুটি হয়ে উঠেছে উর্মি এবং সাত্যকি। উর্মির চরিত্রে অভিনয় করে দর্শকের মন জয় করে নিয়েছেন অভিনেত্রী অন্বেষা হাজরা। অভিনেত্রীর অসাধারণ অভিনয় এবং মিষ্টি ব্যবহারের জন্য দর্শক তাকে ভীষণ পছন্দ করেন। তবে কিছু কিছু মানুষ আছে যারা কখনো অন্যের ভালো দেখতে পারে না তাদের ভালোটা কখনোই সহ্য করতে পারে না। তাদের কাজ হলো সব সময় অন্য মানুষের খারাপ থেকে বের করে আনা। সেরকমই হলো অভিনেত্রী অন্বেষা হাজরা সঙ্গে।

এতদিন সকলেই ভাবতেন হয়তো অভিনেত্রী অন্বেষা হাজরার কোন শত্রু নেই বা কোন হেটার্স নেই বলতে পারেন। কিন্তু সম্প্রতি জি বাংলার অফিশিয়াল পেজ থেকে মুক্তি পেয়েছে দাদাগিরির পর্বে অন্বেষার পারফরমেনস এর ভিডিও। দাদাগিরি গ্র্যান্ড ফিনালে অন্বেষাকে রঙ্গবতী গানে নাচতে দেখা যাবে। সেই ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট হওয়া মাত্রই কমেন্ট বক্সে কিছু মানুষ নিজেদের নোংরা মানসিকতার পরিচয় দিয়েছেন, অন্বেষাকে বাজে বাজে কমেন্ট করে। একজন বলেছেন ‘নাচতে তো পারেনা, ব্যাঙের মতো খালি লাফাচ্ছে লাফালাফিটা শুধুমাত্র সিরিয়ালে মানায়, দাদাগিরির মঞ্চে মোটেই না’ আবার অন্যজনের দাবি ‘একেবারে জোকার লাগছে অন্বেষাকে’। আর কিছু কিছু মানুষের এই ধরনের কমেন্ট দেখে অন্বেষার ভক্তরা তো দারুন চোটে গিয়েছেন তারা ও প্রতিবাদ করেছে কমেন্ট বক্সে।

আর এই সমস্ত কমেন্টের জবাব অন্বেষা নিজে এসে দেন। তিনি অত্যন্ত বিনয়ের সঙ্গে বলেন “আমি ভালো নাচতে পারি না”। আর এই জবাবেই অসংখ্য নেটিজেনদের মুখ বন্ধ হয়ে যায়। আমরা প্রত্যেকেই অন্বেষার অভিনয় দেখেছি তার অভিনয় যেমন সুন্দর তেমনি তার পাশাপাশি তিনি দারুণ নাচো করেন। এর আগে জি বাংলা সোনার সংসার অ্যাওয়ার্ড শো তে তার নাচের পারফরম্যান্স আমরা দেখেছি।

Back to top button