বাংলা সিরিয়াল

প্রেসার কুকার নিতে এসে দিদি নম্বর ১ এ কেঁদে ফেললো লক্ষী কাকিমা! একঢিলে দুই পাখি মারছে জি বাংলা! নিজেদের ধারাবাহিক ও রিয়েলিটি শো এর প্রচারের জন্য লক্ষ্মী কাকিমা সুপারস্টারে হচ্ছে দিদি নাম্বার ওয়ান

জনপ্রিয় রিয়েলিটি শো দিদি নাম্বার ওয়ান যেখানে বহু দিদিরা খেলতে আসেন, তাদের জীবনের লড়াইয়ের গল্প বলেন এবং বহু উপহার জিতে নিয়ে যায়। এই শো টি জি বাংলায় হয়, বাংলা চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় নায়িকা রচনা ব্যানার্জী এই শোয়ে সঞ্চালনা করেন। অন্যদিকে জি বাংলার অপর জনপ্রিয় লক্ষ্মী কাকীমা সুপারস্টার, সম্প্রতি জি বাংলার এই দুটি শো-কে মিলিয়ে দেওয়া হয়েছে। অর্থাৎ জি বাংলার দিদি নাম্বার ওয়ানের সেট এ হবে লক্ষী কাকিমা সুপারস্টার আর লক্ষ্মী কাকিমা সুপারস্টারের তারকাদের সাথে হবে দিদি নাম্বার ওয়ান। ইতিমধ্যেই এই প্রোমো ভিডিও ভাইরাল হয়ে গেছে যা দেখে চক্ষু ছানাবড়া হয়ে গিয়েছে সকলের। কি এতদূর অবধি পড়ে মাথা গুলিয়ে যাচ্ছে তো! তাহলে পরিষ্কার করেই বলি।

গতকাল লক্ষ্মী কাকিমা সুপারস্টারের এপিসোডে দেখা যায় যে লক্ষ্মী কাকিমা যে বাড়িতে ভাড়া গিয়েছে সে বাড়িতে কোন কিছুই নেই অন্যদিকে লক্ষ্মী কাকিমার বউ হংসিনী চাকরির ইন্টারভিউ দিতে যাবে‌। লক্ষী কাকীমা তাকে বলেছে তুই স্নান করে নে ততক্ষণে আমার ভাত হয়ে যাবে। কিন্তু দেখা যায় হংসিনী বেরিয়ে এলেও সঠিক সময় ভাত হয় না। এরপর লক্ষ্মী কাকিমা তার ছেলেকে বলে আজ যদি একটা প্রেসার কুকার থাকত তাহলে এই দশা হত না! ঠিক সেই সময় দেখা যায় পাশের বাড়ির টিভিতে দিদি নাম্বার ওয়ান হচ্ছে এবং দিদি নাম্বার ওয়ানে বিজেতাদেরকে জ্যাকপট রাউন্ডে প্রেসার কুকার দেওয়া হবে বলা হচ্ছে। এই শুনে লক্ষ্মী কাকিমা তার বউ হাসকে বলে আমি দিদি নাম্বার ওয়ানে যাব এবং সেখানে জিতে একটি প্রেশার কুকার আনব। হাস বলে আমি দেখছি কোথায় দিদি নাম্বার ওয়ানের অডিশন হয়?

এরপর জি বাংলার তরফ থেকে একটি প্রোমো এপিসোড ভাইরাল করা হয়েছে যেখানে দেখা যাচ্ছে যে আগামী ১০ই জুলাই রবিবার রাত সাড়ে আটটায় জি বাংলায় দিদি নাম্বার ওয়ান এর সেটে হাজির হয়েছে লক্ষ্মী কাকিমা সুপারস্টার। মূল পর্বে দুজন সেখানে পৌঁছেছে একজন লক্ষী কাকিমা আর একজন রঞ্জনা। লক্ষ্মী কাকিমা রচনাকে বলছে আমি যে বাড়িতে ভাড়া থাকি না সে বাড়িতে কিছু নেই গো একটা প্রেসার কুকার জিতবার জন্য আমি এখানে এসেছি। এবার জ্যাকপট রাউন্ডে কে জিততে পারে লক্ষ্মী কাকিমা না রঞ্জনা সেটাই দেখার। রচনা ব্যানার্জি বলেন লক্ষ্মীর স্কোর আর রঞ্জনার স্কোর টা‌ই হয়েছে। লক্ষ্মী কাকিমা দিদি নাম্বার ওয়ান হতে পারবে কিনা এখন সেটাই দেখার।

অন্যান্য ধারাবাহিকে যেখানে নায়ক নায়িকাকে জেতানোর জন্য স্ক্রিপ্টেড বিভিন্ন রিয়েলিটি শো করা হয়, সেখানে এক্ষেত্রে জি বাংলা নিজেদেরই একটি রিয়েলিটি শোকে তুলে আনছেন ধারাবাহিকের মধ্যে! এই চিন্তা ভাবনা বাংলা ধারাবাহিকে এই প্রথম। এক্ষেত্রে এক ঢিলে দুই পাখি মারা হচ্ছে। নিজেদের ধারাবাহিকেরও টিআরপি বাড়ছে আবার নিজেদের চ্যানেলের রিয়েলিটি শো এর প্রতি ও মানুষের আগ্রহ বাড়ছে। এই ভিডিওটি শেয়ার করে একজন ভক্ত লিখেছেন এইরকম ইউনিক আইডিয়া একমাত্র জি বাংলার পক্ষে সম্ভব। অনেকে এ কথাও বলেছেন যে এরপর অন্যান্য চ্যানেলেও এই বিষয়টির অনুসরণ করবেন।

Back to top button