বাংলা সিরিয়াল

‘৫৬ বার বঙ্গ সেরা হওয়া মিঠাই বিয়ে দেখিয়ে টপ করেছে মাত্র দুবার! অন্যদিকে ৬ বার বেঙ্গল টপার হওয়া, ধুলোকণা ৪বার বিয়ে দেখিয়ে টপ করেছে! বিয়ে দেখিয়ে তাহলে কে টপার হয়?’ অকাট্য যুক্তি নিয়ে হাজির হলেন মিঠাই ভক্ত

এই সপ্তাহে টিআরপিতে দেখা যাচ্ছে ৮.২ পেয়ে বেঙ্গল টপার হয়েছে ধুলোকণা। স্লটলিড করার সাথে সাথে দীর্ঘ সময় পরে বঙ্গ সেরা হয়েছে এই ধারাবাহিক, এখন এই ধারাবাহিক যখন বঙ্গ সেরা হয়েছে তখন ধারাবাহিকে যে ট্রাক চলছিল তা হল অপরাধীদের পর্দা ফাঁস হচ্ছিলো। যেমন চান্দ্রেয়ী যে লালনের খুন করিয়েছে সেটা প্রমাণসহ ধরে ফেলে ফুলঝুরি, অন্যদিকে ধরা পড়ে শ্রীরূপাও, অপরদিকে দেখা যায় শ্রীরূপার কাছে থাকা চান্দ্রেয়ীর মেয়ে চড়ুইকে একটা হোটেল থেকে উদ্ধার করে আনছে শ্রীরূপার‌ই ছেলে। অন্যদিকে লালন যে জীবিত তেমনটাও দেখানো হচ্ছে। সব মিলিয়ে জমজমাট ট্রাক চলার জন্য বঙ্গ সেরা হয়েছে এই ধারাবাহিক।

তবে এই ধারাবাহিক বঙ্গ সেরা হতেই আবার পুরনো বিতর্ক উসকে উঠেছে। একটা সময় প্রায়ই বলা হত যে ধুলোকনা বিয়ে দেখিয়ে টপার হয়, তাই এই সপ্তাহে ধুলোকনা টপার হওয়ায় ধুলকনা ভক্তরা বলতে শুরু করেন, এই সপ্তাহে তো কারোর বিয়েই ছিল না তাহলে কি করে ধুলোকণা টপার হলো?

ধুলো কণা ভক্তরা পাল্টা বলতে শুরু করে যে ধুলো কণা নয় বরং মিঠাই বিয়ে দেখিয়ে বারবার টপার হয়। এই বক্তব্যের বিরোধিতা করে একজন নেটিজেন সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি পোস্ট করেন যেখানে তিনি লেখেন যে ধুলোকনা কতবার বেঙ্গল টপার হয়েছে এবং তার মধ্যে কতবার বিয়ে দেখিয়েছে আর মিঠাই কতবার বেঙ্গল টপার হয়েছে আর তার মধ্যে কতবার বিয়ে দেখিয়েছে!

রীতিমতো ঐকিক নিয়মে অংক কষে ওই ব্যক্তি লেখেন “ধুলোকণা ৬ বার বেঙ্গল টপার হওয়ার বিপরীতে বিয়ের সপ্তাহ ছিল ৪ বার। অর্থাৎ বেঙ্গল টপার হয়েছে .৬৬%।

অন্যদিকে মিঠাই ৫৬ বার বেঙ্গল টপার হওয়ার বিপরীতে বিয়ের সপ্তাহ ছিল ২ বার(মিঠাই প্রথম বিয়ে, স্যান্ডির বিয়ে, নিপার বিয়েতে টপার হয়নি।) অর্থাৎ মিঠাই ৩%”

এরপর ওই ব্যক্তি ক্যাপশনে আরো লেখেন, “অতিব পন্ডিত ব্যক্তিদের মস্তকে মগজ ঢোকানোর শেষ প্রচেষ্টা।”

Back to top button