বাংলা সিরিয়াল

এবার ক্যান্সার আক্রান্ত ঐন্দ্রিলার মা! মেয়ে জানতেন ক্যানসারে আক্রান্ত মাও! দেড় মাস যেতে না যেতেই সামনে এলো খবর, আপাতত চিকিৎসাধীন তিনি

দেড় মাস হয়েছে মারণ রোগ কেড়ে নিয়েছে ঐন্দ্রিলা শর্মার(Aindrila Sharma) মতো এক তরতাজা প্রাণ। তবে কয়েক মাস যেতে না যেতেই ফের দুশ্চিন্তা গ্রাস করেছে অভিনেত্রীর পরিবারকে। যে ক্যান্সার সবটুকু শেষ করে দিয়েছে ঐন্দ্রিলার পরিবারকে। এবার সেই এক রোগে আক্রান্ত ঐন্দ্রিলার মা শিখা শর্মা(Sikha Sharma)। ১৩ জানুয়ারি কলকাতার টাটা মেডিকেল সেন্টার এ ক্যান্সারের অপারেশন হতে চলেছে তা

তাহলে কি মা এই এক রোগে আক্রান্ত জানতেন মেয়ে ঐন্দ্রিলা? শিখা দেবী জানিয়েছেন ১ নভেম্বর ব্রেন স্ট্রোকে আক্রান্ত হওয়ার আগে মেয়ে জানতে পেরেছিল মায়ের ক্যান্সারে আক্রান্ত হওয়ার কথা। এই নিয়ে ভীষণ দুশ্চিন্তায় ছিলেন তিনি। সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে শিখা শর্মা জানান, ঐন্দ্রিলা নিজের দিল্লিতে গিয়ে চিকিৎসকের সঙ্গে কথা বলেছিলেন। অস্ত্রোপচারের যাবতীয় ব্যবস্থা করে এসেছিলেন। ব্লাডারে ক্যান্সার ধরা পড়েছে তার মায়ের। ইতিমধ্যে হয়ে গিয়েছে দুবার গিয়ে কেমোথেরাপি।

ঐন্দ্রিলা যখন হাওড়ার বেসরকারি হাসপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লোর ছিল তখন রেডিয়েশন থেরাপি জারি ছিল শিখা দেবীর। কেমো চললেও এক মুহূর্তের জন্য মেয়েকে কাছ ছাড়া করেননি তিনি। এর সবটুকু উজাড় করে দিয়েছিলেন তাকে বাঁচানোর জন্য। কথা বলতে বলতে গলা বুঁজে আসছিল শিখা শর্মার।

অভিনেত্রীর মৃত্যুর পরদিন থেকেই বিছানা নিয়ে ছিলেন শিখা দেবী। ভালো নেই তিনি। এখনো মেয়ের স্মৃতি আঁকড়ে কাটছে জীবন। সর্দি কাশি পিছু ছাড়ছে না। কিন্তু অপারেশনের আগে তা সারিয়ে তুলতে হবে। তবে আর দিল্লী নয়। কলকাতাতেই চিকিৎসা করাবেন নিজের জন্য। ভালো থাকা হবে না জেনেও বেঁচে আছেন শেখা শর্মা। নতুন করে লড়াই করছেন ক্যান্সারের সঙ্গে।

আপাতত ঐন্দ্রিলার বাবা-মা বহরমপুরেই রয়েছেন। দুজনেই কাজে যোগ দিয়েছেন। দুবার ক্যান্সারকে পরাজিত করেছিলেন ঐন্দ্রিলা। শেষে মস্তিষ্কে ক্যান্সার ছড়িয়ে পড়ে তার। এমনটাই ধারণা করেছিলেন চিকিৎসকেরা। তাই হিসেব ব্রেন স্ট্রোকের শিকার হতে হয় তাকে। তারপরেই কোমায় চলে যান তিনি। চিকিৎসকরা জানিয়েছিলেন ইউয়িং সারাকমা নামক এক রোগে আক্রান্ত হয়েছিলেন তিনি যা থেকে সেরে ওঠা দুঃসাধ্য। গত ২০ নভেম্বর দুপুরে মৃত্যু হয় ঐন্দ্রিলা শর্মার।

Back to top button