বাংলা সিরিয়াল

অভিনেত্রী কৌশাম্বী চক্রবর্তীর সঙ্গে প্রেমের গুজব নিয়ে সরাসরি মুখ খুললেন অভিনেতা আদৃত রায়, সুপ্রিয়া মাঝে মধ্যেই মিঠাইয়ের সেটে চলে আসতেন, এসব একেবারেই পছন্দ করতেন না আদৃত

বেশ কিছুদিন হল টেলিপাড়ায় একটা বিশেষ গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে। সোশ্যাল মিডিয়ার চোখ রাখলেই দেখা যাচ্ছে মিঠাইয়ের কেন্দ্রীয় চরিত্র সিদ্ধার্থ অর্থাৎ অভিনেতা আদৃত রায় নাকি আবার নতুন করে প্রেমের সম্পর্কে জড়িয়েছেন। এবারে প্রেমিকা আর অন্য কেউ নয় তারই ধারাবাহিকের সহ-অভিনেত্রী কৌশম্বি চক্রবর্তী। অর্থাৎ অনস্ক্রিন আমরা যাকে সিদ্ধার্থের দিদিয়ার চরিত্রে অভিনয় করতে দেখতে পাই। সম্প্রতি আমরা জানতে পেরেছি অভিনেতার ১০ বছরের পুরনো প্রেমিকা সুপ্রিয়া ইতিমধ্যেই অন্য একজন পুরুষের সঙ্গে আংটি বদল করে নিয়েছে। যা শুনে মন ভেঙেছে আদৃতের বহু ভক্তের।

১০ বছরের বেশি সময় ধরে সুপ্রিয়া সঙ্গে সম্পর্ক রয়েছেন আদৃত। তবে এ বিষয়ে কখনও তিনি খুল্লামখুল্লা কোনো আলোচনা করেনি। গত বছরের নভেম্বর মাসে নাকি আদৃত এবং সুপ্রিয়ার বিয়ে হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু বিশেষ কিছু কারণের জন্যই নাকি তাদের সম্পর্ক ভেঙে যায়। এই বিশেষ কারণ হিসেবে জানা যায় সুপ্রিয় নাকি মাঝেমধ্যে মিঠাইয়ের সেটে চলে আসতেন যা একেবারেই পছন্দ করতেন না আদৃত। এছাড়াও আদৃত এখনই বিয়ের জন্য প্রস্তুত ছিলেন না। সরস্বতী পূজার দিন সুপ্রিয়া এবং তার নতুন জীবন সঙ্গীর নাম না করেই দুজনকে ভালো থাকার শুভেচ্ছাবার্তা জানিয়েছেন তিনি। অভিনেতা বলেন “দুজনেরই ভাল থাকাটা জরুরি। দুটো মানুষ একে অপরকে ভাল বাসলেও হয়তো একসঙ্গে ভাল থাকতে পারে না। তাই আমরাও পারিনি। ও ভাল থাকুক।”

এর মধ্যে বেশ কিছুদিন হল শোনা যাচ্ছে আদৃত নাকি নতুন প্রেম শুরু করেছেন। সহ-অভিনেত্রী কৌশাম্বির সঙ্গে নাকি সম্পর্কে জড়িয়েছেন বেশ কয়েকমাস আগে। বিষয়টি কানে যেতেই এক সংবাদ মাধ্যমের দ্বারা আদৃত স্পষ্ট জানিয়ে দেয় যে “এইসব একেবারেই ভুল তথ্য। কৌশাম্বি এবং আমি খুবই ভালো বন্ধু। সত্যি কথা বলতে গেলে আমাদের সেটের প্রত্যেকে প্রত্যেকের খুব ভালো এবং কাছের বন্ধু। যারা এই ধরনের কথা রটাচ্ছেন তারা আসলেই নিচু মানসিকতার মানুষ, এর আগেও দিতিপ্রিয়া সঙ্গে আমার সম্পর্কের কথা রটানো হয়েছিল। আমি চাইলেই এইসব মানুষদের প্রতি বিশেষ পদক্ষেপ নিতে পারি। কিন্তু আমি সেগুলি কিছুই করছি না। কারন আমি এই কথাগুলি এতে বিশেষ কর্ণপাত করিনা।”

Back to top button