বাংলা সিরিয়াল

রাখি বন্ধনে সবার কাছে রাখি পড়লেন আদৃত! শুধু কৌশাম্বীর কাছে নয়! কেন? প্রশ্ন তুললেন মিঠাই ভক্তরা!

জি বাংলার জনপ্রিয় ধারাবাহিক মিঠাই। একাধিকবার বঙ্গ সেরা হ‌ওয়া এই ধারাবাহিক নতুন নতুন ধারাবাহিকের সাথে প্রতিযোগিতায় হেরে না গিয়ে ক্রমাগত নিজের অবস্থান বজায় রেখেছে এবং এখনো নিজের জনপ্রিয়তা টিকিয়ে রেখেছে প্রশ্নাতীত ভাবে। সম্প্রতি এই ধারাবাহিকের একটি প্রোমো প্রকাশ করা হয়েছে চ্যানেলের তরফ থেকে, যেখানে দেখানো হচ্ছে যে মনোহরার উপর বদলা নেওয়ার জন্য ওমি মনোহারায় একটি বোমা সেট করেছে এবং সিদ্ধার্থ ক্রমাগত চেষ্টা করে চলেছে বোমটি ডিফিউজ করে মনেহরা সহ মোদক পরিবারকে বাঁচাতে।এই সিদ্ধার্থের ভূমিকায় অভিনয় করে সকলের মন জয় করে নিয়েছেন আদৃত রায়। সকলেই তাকে উচ্ছেবাবু হিসেবেই চেনেন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ভীষণ রকম জনপ্রিয় তিনি, বড় পর্দায় অভিনয় করেও যে আকাশচুম্বি জনপ্রিয়তা তিনি পাননি তা তিনি অবলীলায় পেয়েছেন মিঠাই ধারাবাহিকে অভিনয় করে। তবে এই জনপ্রিয়তার কারণে তার ব্যক্তিগত জীবন নিয়েও কিছু অতি আগ্রহী ফ্যান উৎসাহ দেখিয়ে বসেন যার কারণে তার ব্যক্তিগত জীবন নিয়েও কাটা ছেঁড়া চলে। তার সাথে মিঠাই খ্যাত জনপ্রিয় অভিনেত্রী সৌমিতৃষা কুন্ডু ও দিদিয়া কৌশম্বী চক্রবর্তীর অফ স্ক্রিন সম্পর্ক কেমন তা নিয়ে প্রায়ই আলোচনা হয়।

অভিনেতা নিজে কৌশম্বির সাথে ছবি শেয়ার করে নিজের বেস্ট ফ্রেন্ড বলে দাবি করলে দুজনের সম্পর্ক নিয়ে নানান রকম জল্পনা শুরু হয় যদিও দুজনের মধ্যে কেউই এই সম্পর্কের কথা স্বীকার করেননি তবুও গুঞ্জন থেমে থাকে না,‌ থেমে থাকে না ট্রোলিং।

সম্প্রতি ভারত লক্ষ্মী স্টুডিওর বাইরে আদৃতের ভক্তরা ভিড় জমিয়ে ছিল তাকে রাখি পরানোর জন্য। অনেকেই আদৃতের ছবি প্রিন্ট করার আগে নিয়ে এসেছিলেন আদরিতকে পরাবেন বলে। রাখি সহ ভক্তদের সাথে ছবি তুলে অভিনেতা সেই ছবি শেয়ার করেন সোশ্যাল মিডিয়ায় এবং ক্যাপশনে লেখেন “রক্ষা বন্ধনের আগাম শুভেচ্ছা এত ভালোবাসার জন্য অনেক ধন্যবাদ।”-আদৃতের এই ক্যাপশনকে ঘিরে শুরু হয় কটাক্ষ। একজন প্রশ্ন তোলেন কৌশম্বির কাছে রাখি পড়বেন না আদৃত? আসলে এক সাক্ষাৎকারে আদৃত বলেছিলেন, মিঠাই তাকে তিনজন বোন উপহার দিয়েছে যাদের মধ্যে কৌশম্বী একজন। তাহলে বোনের কাছে রাখি কেন করবেন না আদৃত? আর একজন আবার কটাক্ষ করেছেন প্রথমে বোন বললেও এখন কৌশাম্বী আদৃতের বেস্ট ফ্রেন্ড তাই তারা একসাথে ফ্রেন্ডশিপ ডে পালন করবেন। যদিও এই সকল উক্তি প্রত্যুক্তির কোন উত্তরই দেননি আদৃত।

Back to top button