ভাইরাল

‘কাঁচা বাদাম’ গানের হিন্দি ভার্সান গাইলেন হিরো আলম! তুমুল ভাইরাল ভিডিও, ভিডিও ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়

সম্প্রতি গোটা সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে বীরভূমের বাদাম বিক্রেতা ভুবন বাদ্যকর এখন ভাইরাল। গান গেয়ে বাদাম বিক্রি করার এমন অভিনব পদ্ধতির জন্যই আজ তিনি জনপ্রিয় হয়েছেন নেটদুনিয়ায়। এখন সোশ্যাল মিডিয়া খুললেই ভুবন বাবুর লেখা ও সুর করা ‘বাদাম বাদাম দাদা কাঁচা বাদাম, আমার কাছে নাই গো বুবু ভাজা বাদাম’,গানটি শোনা যাচ্ছে। একাধিক ইউটিউবার এই গান নিয়ে রীতিমতো কাটাছেঁড়া করা শুরু করে দিয়েছেন। সেগুলো ভাইরাল হচ্ছে নিমেষে। অথচ এদিকে নিজের গানের কপিরাইট পাননি এই বাদাম বিক্রেতা। যার জন্য ইতিমধ্যেই তিনি দুবরাজপুর থানায় পুলিশের দ্বারস্থ হয়েছেন। তার দাবি তার গান যেন তারই থাকে।

হঠাৎ করেই নেটদুনিয়ায় ভাইরাল হয়েছেন ভুবন বাদ্যকর। তার কথায়, তিনি নেটদুনিয়ায় ভাইরাল হওয়ার পর থেকেই সকলে তার সাথে দেখা করতে এসে বাদাম না কিনে শুধু গান শুনেই চলে যান। সোশ্যাল মিডিয়ায় তার এত জনপ্রিয়তা তার জীবনে বিপদ ডেকে এনেছে। তার দাবি, এই জনপ্রিয়তা ক্ষতি করছে তার ব্যবসার। তার কথায়, তার গান সকলেই ব্যবহার করছেন কিন্তু তিনি কিছুই পাচ্ছেন না। এমনকি তিনি এবং তার পরিবারের সদস্যরা আতঙ্কে দিন কাটাচ্ছেন। তাদের ভয় এই জনপ্রিয়তার জন্য তিনি অপহরণ হয়ে যেতে পারেন। তার এই ভাবনার জন্য নেটনাগরিকদের কাছে কম ট্রোল হতে হয়নি ভুবনবাবুকে।

আর এই ‘কাঁচা বাদাম’ ট্রেন্ড থেকে শুধু শুধু হিরো আলমই বা কেনো বাদ থাকে! এবার সেও যুক্ত হল এই ‘কাঁচা বাদাম’এর ট্রেন্ডিংয়ের তালিকায়। এই গানের হিন্দি ভার্সান সকলের জন্য নিয়ে আসছে সে, নিজেই সকলকে জানালো সেই খবর। সেই খবর সামনে আসতেই ঝড়ের গতিতে তা ছড়িয়ে যায় গোটা নেটদুনিয়ায় সমস্ত নেটনাগরিকদের মধ্যে। সেই গানের মেকিং ভিডিও ভ্লগ আকারে নিজের ইউটিউব চ্যানেল থেকে শেয়ার করে নিল হিরো আলম, যা এই মুহূর্তে নেটিজেনদের মধ্যে ভাইরাল।

ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে স্টেশনে ঘুরে ঘুরে বাদাম বিক্রি করছে সে। আর লোকজন তার কাছ থেকে বাদাম কিনছেও। তাকে ঘিরে দাঁড়িয়ে আছে বহু লোকজন। কেউ কেউ এসে সেলফিও তুলে যাচ্ছেন তার সাথে। গলায় একটা বড় ঝুড়ি ঝুলিয়ে রাস্তায় নেমে পড়েছে হিরো আলম। শুটিংয়ের সময়ের কিছু ছবি শেয়ার করে তিনি নিজেই লিখেছেন বগুড়ায় শুটিং করেছেন তিনি। এই দৃশ্য দেখে অবাক নেটিজেনদের একাংশ। নিজের কাণ্ডকারখানার জন্য রীতিমতো নেটিজেনদের মাঝে ট্রোল হন তিনি। এখন সকলেই তার এই ‘কাঁচা বাদাম’এর হিন্দি ভার্সানের জন্য অপেক্ষায় রয়েছেন। তারপর ঠিক কি হতে চলেছে গোটা সোশাল মিডিয়া জুড়ে, তা কিছুটা হলেও হয়তো আন্দাজ করা যাচ্ছে।

Back to top button