গতবছর লকডাউন অমান্য করে চা খেতে বেরোনো ‘চা-কাকু’ আজ কোভিড ভলান্টিয়ার! জানুন কিভাবে পাল্টে গেছে তার জীবন

গতবছর লকডাউনে সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড় তুলেছিল একটি স্বল্প দৈর্ঘ্যের ভিডিও। যেখানে দেখা গিয়েছিল লকডাউন অমান্য করে চা খেতে বেরোনো তিন ব্যক্তিকে।

তাদের মধ্যে দুজন ভিডিওটি যিনি করেছিলেন তার প্রশ্নের উত্তর দিতে না চাইলেও এক কাকু মিষ্টি গলায় পাল্টা প্রশ্ন ছুড়ে দিয়েছিলেন। বলেছিলেন “আমরা কি চা খাবোনা? খাবোনা আমরা চা?”

তার বলা এই লাইনটি রাতারাতি ভাইরাল হয়ে গিয়েছিল সোশ্যাল মিডিয়ায়। তাকে নিয়ে তৈরি হয়েছিল হাজার মিম।
বলা যেতে পারে ওই একটি ভিডিওই বদলে দিয়েছিল তার জীবন।

অভিনেত্রী সাংসদ মিমি চক্রবর্তী এগিয়ে এসেছিলেন তাকে আর্থিক সাহায্য করতে যখন জানতে পেরেছিলেন যে ভাইরাল হওয়া ওই চা কাকু ওরফে মৃদুল দেব পেশায় একজন দিনমজুর।

মিমি তার পরিবার ও তার ছেলের পড়াশোনার যাবতীয় খরচা তুলে নিয়েছিলেন নিজের কাঁধে। এবার সেই চা কাকুই আবার ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়। এবার অবশ্য লকডাউন অমান্য নয়, বরং মৃদুল বাবু ভাইরাল হয়েছেন ফ্রন্টলাইনে দাঁড়িয়ে কোভিড এর সঙ্গে যুদ্ধ করার জন্যে।

দিনমজুরি পেশা ছেড়ে এখন তিনি কাজ করছেন কোভিড ভলান্টিয়ার হিসেবে। ইতিমধ্যেই একাধিক কোভিড আক্রান্ত পরিবারের পাশে দাঁড়িয়েছেন তিনি।

তার এই কর্মকান্ড ব্যাপকভাবে প্রশংসিত হয়েছে নেটিজেনদের কাছে। তবে মৃদুল বাবু কিন্তু সমস্ত কৃতিত্বটাই দিয়েছেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। সোশ্যাল মিডিয়াই তার জীবন বদলে দিয়েছে বলে সকলকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন সকলের প্রিয় চা-কাকু।