Fact Check: যোগঋষি মোদীর যোগী রূপ ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়, ভিডিওটি সত্যি না ভুয়ো?

কয়েকদিন যাবৎ সাদা—কালো একটি ভিডিওকে কেন্দ্র করে সোশ্যাল মিডিয়ায় শুরু হয়েছে নানারাকম জল্পনা৷ ভিডিওটি আসলে যোগাসনের আর তা—ই হয়েছে ভাইরাল৷ ভিডিও দেখেই বোঝা যাচ্ছে যে বেশ পুরোনো আর সেখানে দেখা যাচ্ছে এক ব্যক্তি কঠিন যোগাসন করছেন৷

কঠিন যোগাসনরত ব্যক্তির মুখ যদিও ভিডিওতে অস্পষ্ট৷ কিন্তু এই ভিডিওটিই এখন ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়াতে৷ অনেকে ভিডিওটি দাবী করেছেন যে কঠিন যোগাসনরত ব্যক্তিটি আসলে আর কেউই নন,স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী৷

অনেকের মতে এটি তার অনেক তরুণ বয়সের ভিডিও৷ পুরোনো দিনের ভিডিও রেকর্ডিং তাই মুখ ভালমতো বোঝা যাচ্ছে না৷ তরুণ বয়সে নরেন্দ্র মোদী কঠিন যোগাসন করছেন ,সেই ভিডিও স্বাভাবিকভাবেই এক উত্তেজনার সূত্রপাত ঘটিয়েছে সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মে৷ অনেকেই মোদীর এই “যোগী” রূপে মুগ্ধ৷ কিন্তু পাশাপাশি অনেকে আবার এটি মোদীর যুব বয়সের ভিডিও নয় বলেও দাবী করেছেন৷ তাদের মতে ভিডিওতে যে ব্যক্তিকে দেখা যাচ্ছে তিনি কোনোভাবেই নরেন্দ্র মোদী নন৷

তাহলে সত্যিটা কি? জেনে নেওয়া যাক

ভাইরাল ভিডিওটি ২মিনিট ২০সেকেণ্ড দীর্ঘ৷ বিজেপি নেতা মনোজ গোয়েল ভিডিওটি শেয়ার করেছেন সর্বপ্রথম এবং ক্যাপশন দিয়েছেন “যোগঋষি প্রধানমন্ত্রী মোদীর যোগী রূপ”৷ সাথে সাথেই অনেকে ভিডিওটি মোদীর যোগাভ্যাস বলেই দাবী করেন এবং শেয়ার করেন৷ একপক্ষ একথা মানতে নারাজ৷ তাদের দাবী ভিডিওতে মুখ স্পষ্ট নয় ব্যক্তিটির,কিন্তু তা মোদীর নয়৷ মোদীর সাথে চেহারাগত কিছু মিল থাকলেও তিনি মোদীজি নন৷

ভিডিওটির সত্যতা যাচাই করতে গিয়ে সামনে এসেছে আসল তথ্য৷ ভিডিওটি গুগল সার্চ ইঞ্জিনে গিয়ে সার্চ করতেই দেখা গেছে,২০০৬সালে ইউটিউবে এই একই ভিডিওর একটি দীর্ঘতম সংস্করণ আপলোড করা হয়েছে৷ ইউটিউবের ভিডিওটির দৈর্ঘ্য ৩মিনিট ১১সেকেণ্ড৷ ভিডিওটির ক্যাপশনে লেখা ম্যাকপেটরুক সংস্থা ১৯৩৮সালে ভিডিওটি তুলেছিল আর ভিডিওতে যোগাভ্যাসরত ব্যক্তি হলেন বিখ্যাত যোগগুরু বিকেএস আইঙ্গার৷ তিনি “আইঙ্গার যোগ” শৈলীর উদ্ভাবক৷ যোগগুরুদের মধ্যে অন্যতম শ্রেষ্ঠ৷ ভিডিওতে কঠিন যোগাসন করছেন আইঙ্গার৷ তার মধ্যে দুরকমের অষ্টাঙ্গাসন দেখা যাচ্ছে৷

প্রসঙ্গত বলা যায় ,তার যোগগুরু ছিলেন আধুনিক যোগাভ্যাসের জনক তিরুমালাই কৃষ্ণামাচার্য৷ তার হাত ধরেই আসলে যোগ ভারত ও বিদেশের মাটিতে জনপ্রিয় হয়৷ইউটিউবের ভিডিওতে তিরুমালাইকেও দেখা গেছে,কিন্তু ভাইরাল ভিডিওতে সেটুকু রাখা হয়নি৷ ক্লিপ কেটে নিয়ে আপলোড করা হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়াতে৷তবে আপাতত ভাইরাল ভিডিওটি সরিয়ে দেওয়া হয়েছে ৷সুতরাং এটুকু বোঝা গেল যে ভিডিওটি যে মোদীর এই তথ্য আসলে ভুয়ো৷ প্রধানমন্ত্রী নন,ভিডিওতে কঠিন যোগাসনরত ব্যক্তি হলেন বিকেএস আইঙ্গার৷