টলিউডের অতি পরিচিত নায়িকাদের গোপন প্লাস্টিক সার্জারি! জানাজানি হতেই উত্তাল নেট দুনিয়া

আমাদের দেশে বলিউডি নায়িকারা অনেক সময়ই প্লাস্টিক সার্জারি করে সুন্দরী হয়ে ওঠার অভিযোগে অভিযুক্ত হন। কিন্তু বাংলা টলিউড নায়িকারাও সেখানে পিছিয়ে নেই। অনেকেই দর্শকের কাছে আরও আকর্ষনীয় হওয়ার জন্য এখন সাহায্য নিচ্ছেন প্লাস্টিক সার্জারির।

টলিউড অভিনেত্রী শুভশ্রী গাঙ্গুলী যখন ডেবিউ করেছিলেন তখন তার চেহারা এবং এখনের মুখশ্রী সম্পূর্ণ আলাদা। অনেক নেটিজেনই শুভশ্রীর এখনের এবং পুরনো ছবি দেখে বুঝতে পেরেছেন নায়িকা লিপ সার্জারি সাহায্য নিয়েছেন।

 

অভিনেতা দেবের সঙ্গে শুভশ্রীর ক্যারিয়ারের প্রথম দিকের সিনেমা গুলিতে তিনি ছিলেন পাতলা ঠোঁটের অধিকারী কিন্তু এখন লিপ সার্জারি সাহায্যে তার বেশ মোটা ঠোঁট।

তৃণমূল সাংসদ এবং অভিনেত্রী মিমি চক্রবর্তী লিপস ফিলারের সাহায্য নিয়েছেন। তার আগের ঠোঁট এবং এখনের ঠোঁটের মধ্যে অনেকটাই পার্থক্য।

অভিনেত্রী নুসরাত জাহান এবং ঐন্দ্রিলা নিজেদের চেহারার উপর ব্যবহার করেছেন লিপ সার্জারি। ফলে দুজনেরই এখন আগের থেকে অনেকটাই আলাদা মুখশ্রী।

অভিনেত্রী সায়ন্তিকা যখন ডেবিউ করেছিলেন তখন তার গায়ের রং ছিল শ্যমলা। কিন্তু এখন হরমোন ট্রিটমেন্ট ও কসমেটিক সার্জারির পরে তিনি বেশ ফর্সা হয়ে উঠেছেন।

অভিনেত্রী পায়েল সরকার এর অনুগামীরা মনে করতেন নায়িকার চেহারা একেবারে পারফেক্ট। কিন্তু তার পরেও সম্প্রতি একটি ওয়েব সিরিজে দেখা যায় নায়িকা লিপ সার্জারির মাধ্যমে নিজের চেহারা অনেকটাই বদলে ফেলেছেন।

যার উপরে বাংলা সবার ক্রাশ, সেই ঋতাভরী চক্রবর্তীও ব্যবহার করেছেন প্লাস্টিক সার্জারি। এবং তার প্রথমদিকের ছবিগুলির থেকে অনেকটাই আলাদা দেখতে হয়ে উঠেছেন।

টলিউডের এই সমস্ত নায়িকারা আগের থেকে নিজেদের আরও বেশি আকর্ষণীয় করে তোলার জন্য প্লাস্টিক সার্জারি ব্যবহার করলেও অধিকাংশই কেবলমাত্র লিপ সার্জারি করিয়েছেন। তার বেশি প্লাস্টিক সার্জারি টলিউডের কেউই খুব একটা করেননি।