বড়দিনে ফের বড়ো পর্দায় ফিরছেন বাংলার দুই জনপ্রিয় মুখ, “অপরাজিতা-চান্দ্রেয়ী”

পরিচালক মৈনাক ভৌমিক বহুদিন বাদে ফিরছেন বড়ো পর্দার প্রোডাকশন নিয়ে৷ ছবিটি পুরোপুরি নারীকেন্দ্রিক কিনা তা হয়তো জানা নেই,কিন্তু ছবির পুরোভাগে রয়েছেন শুধুই নারীরা৷ মুখ্য ভূমিকায় অভিনয় করেছেন মধুমিতা সরকার,অপরাজিতা আঢ্য৷ তবে এর সাথেই দর্শকের ঘটবে উপরি পাওনা৷

অনেকদিন বাদে বাংলা সিনেমাতে অভিনয় করতে দেখা যাবে চান্দ্রেয়ী ঘোষকে৷ এর মধ্যে অবশ্য তাকে দেখা গিয়েছিল মৈনাক ভৌমিক পরিচালিতই একটি ওয়েব সিরিজে৷ সেই মৈনাকই এবার তাকে নিয়ে আসতে চলেছেন তার ছবিতে৷ সম্প্রতি মধুমিতা সরকার তার ইনস্টাগ্রাম হ্যাণ্ডেলে ছবির পোস্টার শেয়ার করেছিলেন৷ ছবির নাম “চিনি”৷ অপরাজিতা আঢ্যকে দেখা যাবে মধুমিতার মায়ের চরিত্রে৷ মা—মেয়ের দুষ্টুমিষ্টি সম্পর্ক নিয়েই এই ছবি৷

বড়দিনেই মুক্তি পেতে চলেছে “চিনি” svf—এর ব্যানারে৷ তবে এই ছবিতে অনেকদিনের বিরতির পর ফিরছেন চান্দ্রেয়ী৷ একসময় বাংলা সিরিয়াল করে সুনাম অর্জন করেছিলেন,পরিচিত মুখ হয়ে উঠেছিলেন বাংলার ঘরে ঘরে৷ এরপরেই এক লম্বা বিরতি৷ মাঝে দেখা গেল ওয়েব সিরিজে৷ বড়ো পর্দায় সেই অর্থে “চিনি”—তেই হবে তার কামব্যাক৷ একসাথে দেখা যাবে অপরাজিতা আর চান্দ্রেয়ীর মতো দাপুটে অভিনেত্রীদের৷

২০০৪সালে “মেহুলবনীর সেরেঙ্গ” নামক এক সিনেমায় তারা একসাথে অভিনয় করেছিলেন৷ বাংলা সিরিয়ালও করেছেন তারা চুটিয়ে৷ এর দৌলতে একে অপরের সাথে পরিচিত হয়েছিলেন চান্দ্রেয়ী আর অপরাজিতা৷ চান্দ্রেয়ী ঘোষ প্রথম মডেলিং দিয়ে শুরু করেন নিজের কেরিয়ার৷ “সানন্দা”—তে মডেলিং করার পর হলেন সানন্দারই “তিলোত্তমা”৷ চান্দ্রেয়ী বরাবরই ভাগ্যে বিশ্বাসী বলে জানান৷ গোটা লকডাউনে জুড়ে চর্চা করেছেন “হোয়াইট ম্যাজিক”৷ “ব্ল্যাক ম্যাজিক” চর্চাকেও খারাপ চোখে দেখেন না অভিনেত্রী৷ তবে এখনও সিঙ্গেল এই ডিভা৷ তার কথায়,”চিরকাল লোকে আমাকে পিছনে ছুরি মেরে গেছে,পিঠটা দাগে দাগে ভর্তি,একদিন না একদিন আসবে ,সেদিন হয়তো হয়তো ছুরি নি মেরে কেউ এক গ্লাস জল মুখের সামনে ধরবে৷”

বড়দিনেই চান্দ্রেয়ীকে দেখা যাবে বড়ো পর্দায়৷ “চিনি” র পোস্টার দিয়ে মধুমিতা সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করে লিখেছেন,”মা মেয়ের সম্পর্ক চিনির মতোই মিষ্টি তাই না?” এখন শুধু ছবি মুক্তির অপেক্ষা৷