বাংলা সিরিয়াল

বিয়ের পরেও সুখে নেই সাজি, কেড়ে নেওয়া হয়েছে সোনার গয়না! সাজির শ্বশুরবাড়িতে গিয়ে সবার কাছে হাতজোড় করে সাজি কে ভালো রাখার জন্য অনুরোধ করে সৌজন্য, ‘খড়কুটো’ ধারাবাহিকের টানটান উত্তেজনা পর্ব

বর্তমানে দর্শকমহলে ধারাবাহিকের চাহিদা দিনে দিনে বাড়ছে। দর্শকদের চাহিদা মেটাতে বিভিন্ন স্বাদের ধারাবাহিক টেলিভিশনের পর্দায় দেখানো হয়। সেরকমই দর্শকদের পছন্দের ধারাবাহিকগুলোর মধ্যে অন্যতম একটি হলো স্টার জলসার খড়কুটো। একান্নবর্তী পরিবারের এই গল্প দর্শকদের বেশ পছন্দের তবে টিআরপি তালিকায় রেটিং কম হওয়ার কারণে এই ধারাবাহিকে সময় পরিবর্তন করতে বাধ্য হয়েছেন ধারাবাহিক কতৃপক্ষ।

কিন্তু সময় পরিবর্তন হলেও খড়কুটোর ভক্তরা ঠিক সময় মতন ধারাবাহিক দেখে নিচ্ছে। এতদিন পর্যন্ত ধারাবাহিকে গুনগুন এবং সৌজন্যের বৈবাহিক জীবন নিয়ে এগোচ্ছিল গল্প। তবে এবারে সৌজন্যের বোন সাজির বিয়ে হয়েছে তার পছন্দের মানুষ স্রোতের সঙ্গে। বর্তমানে তাই স্রোত এবং সাঁঝির বৈবাহিক জীবনের গল্প তুলে ধরা হচ্ছে ধারাবাহিকে।

বাড়ির প্রত্যেকের আপত্তি থাকা সত্ত্বেও সাঝির ভালো থাকার কথা ভেবে সকলেই স্রোতের সঙ্গে সাঝির বিয়ে দিতে রাজি হয়। কিন্তু সাজির শ্বশুরবাড়ির লোকেদের ব্যবহার মোটেই ভাল লাগেনি কারোর। প্রথম থেকেই তাদের অদ্ভুত হাবভাব সন্দেহজনক লেগেছিল প্রত্যেকের এমনকি সাজি শ্বশুর বাড়ি যাওয়ার পর থেকে ভালো ব্যবহার কারো থেকেই পাইনি। এমনকি বিয়ের পরে সাজির সমস্ত সোনার গয়না স্রোতের মা নিজের কাছে রেখে দেন।

বিয়ের পরে সাজির বাড়ি থেকে বৌভাতের আয়োজন করা হয়েছিল। সেই বৌভাতের অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়েছিল সাজির বাপের বাড়ির প্রত্যেকে। সেদিন সকলের সামনে সৌজন্যে বলে যে সাজি কিভাবে ভালো থাকবে সেটাই তার কাছে প্রায়োরিটি। এমনকি সে সকলের সামনেই স্রোতকে অনুরোধ করে যাতে সাঁঝি কিভাবে ভালো থাকে সেই দিকটা খেয়াল রাখতে তাদের মধ্যে যাতে কোনরকম কোন ভুলবোঝাবুঝি না হয় সেটা যেন খেয়াল রাখে।

আর অন্যদিকে গুনগুন বলে ওঠে সে কোনরকম ফোন ইনফর্মেশন না দিয়েই যখন-তখন সে সাজির শ্বশুরবাড়িতে চলে আসতে পারে এটা দেখার জন্য যে সাঝি কতটা ভালো আছে সম্প্রতি এই ধারাবাহিকের ভিডিওটি সোশ্যাল-মিডিয়ায়-ভাইরাল হয়েছে।

Back to top button