বাংলা সিরিয়াল

‘এতো দামি কেক মুখে মাখিয়ে নষ্ট না করে কাওকে খাওয়াতে পারতেন’, ‘ধুলোকণা’ ধারাবাহিকে সেটেই কেক কেটে সেলিব্রেট করা হলো অভিনেত্রী ঈপ্সিতা মুখোপাধ্যায়ের জন্মদিন, ট্রোল ও হতে হলো অভিনেত্রীকে

টেলিভিশনে ছোটপর্দার অন্যতম জনপ্রিয় মুখ হল ঈপ্সিতা মুখোপাধ্যায়। দীর্ঘ কয়েক বছর ধরে তিনি টেলিভিশনের পর্দার সঙ্গে যুক্ত রয়েছেন। বিভিন্ন ধারাবাহিকে অভিনয় করতে দেখা গেছে তাকে। প্রথম জনপ্রিয়তা পেয়েছে জি বাংলার জনপ্রিয় ধারাবাহিক ‘সুবর্ণলতা’ এই ধারাবাহিকের হাত ধরেই তার পথচলা শুরু। ওই ধারাবাহিকে ইপ্সিতার চরিত্র দর্শকের মনে দাগ কেটেছিল। এরপর একে একে ‘কেয়া পাতার নৌকো,’ ‘আলো ছায়া’র মতো ধারাবাহিকে আমরা তাকে অভিনয় করতে দেখতে পেয়েছি। বর্তমানে তিনি অভিনয় করছেন স্টার জলসার অন্যতম জনপ্রিয় ধারাবাহিক ‘ধুলোকনা ‘তে।

গতকাল ছিল অভিনেত্রী শুভ জন্মদিন। জন্মদিনের দিনে ধারাবাহিকের সেটেই ছোট করে সেলিব্রেশন হয়েছে, কেক কেটে অভিনেত্রীর জন্মদিন পালন করা হয়েছে। কেক কাটার সময় উপস্থিত ছিলেন অভিনেত্রী মানালি, প্রীতি, অনিন্দিতা সহ আরো অনেকে। তবে তার জন্মদিনের বিশেষ আকর্ষণ ছিল অভিনেত্রী সাবিত্রী চট্টোপাধ্যায়। ঐদিন নিজের হাতে ঈপ্সিতাকে পরম যত্নে কেক খাইয়ে দিয়েছিলেন সাবিত্রী দেবী।

ইতিমধ্যে অভিনেত্রীর বার্থডে সেলিব্রেশন এর একটি ভিডিও সোশ্যাল-মিডিয়ায়-ভাইরাল হয়ে পড়েছে। কেক কাটার পর একে একে প্রত্যেকে অভিনেত্রীকে কেক খাইয়ে দিলেন এরপর এই হল সেই ঘটনা। কেক নিয়ে তার দুই সুন্দর গালে মাখিয়ে দেওয়া হলো আর প্রত্যেকেই পাশ থেকে হেসে উঠে অভিনেত্রী কে সুন্দর লাগছে বলে জানালেন। সকলের ভালোবাসা এবং শুভেচ্ছা পেয়ে ঐদিন খুশিতে ডগোমগো হয়ে উঠেছিলেন ঈপ্সিতা।

নিজের জন্মদিনের সেইসব মুহূর্ত সোশ্যাল মিডিয়ায় ইন্সটাগ্রাম অ্যাকাউন্ট থেকেই ঈপ্সিতা ভাগ করে নিয়েছেন। ছবিতে তাকে সাবিত্রী চট্টোপাধ্যায় সঙ্গে দেখা গিয়েছে। ছবিটি শেয়ার করে ঈপ্সিতা ক্যাপশনে লিখেছেন ‘আমার জীবনের সবচেয়ে অমূল্য একটি ছবি’। অন্যদিকে অর্ণব ঈশিতাকে শুভেচ্ছা জানাতে ভোলেননি। সদ্যই আইনি মতে বিয়ে হয়েছে অর্ণব এবং ইপ্সিতার। ঐদিন অর্ণব ঈপ্সিতা এবং তার একটি মিষ্টি ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেছেন সেই ছবিতে ঈপ্সিতা এবং অর্ণব একে-অপরকে জড়িয়ে রয়েছে ইপ্সিতার গালে রয়েছে একরাশ হাসি। ছবিটি শেয়ার করে অর্ণব ক্যাপশনে লিখেছেন “তোমায় জানাই শুভ জন্মদিন।” ঈপ্সিতাও উত্তর দিয়েছে, “তোমার সঙ্গে কাটানো প্রতিটি দিনই খুব শুভ, খুশির।”

Back to top button